আজ মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং

গ্রামীণফোন গ্রাহকদের জন্য রয়েছে দুঃসংবাদ

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৪-১৮ ১৪:৪৫:৪৯


সিলেটভিউ ডেস্ক :: টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের মঙ্গলবারের বৈঠকে নেয়া একগুচ্ছ সিদ্ধান্তের পর বড় ধরনের খেসারত দিতে হতে পারে গ্রামীণফোন গ্রাহকদের। প্রভাবশালী এই মোবাইল অপারেটরটিকে শাস্তি দিতে সরকারের উদ্যোগে শেষ পর্যন্ত গ্রাহকরাই দণ্ডিত হবেন বলে মনে করা হচ্ছে।

তাৎপর্যপূর্ণ বাজার ক্ষমতাধর (এসএমপি) অপারেটর ঘোষণার বিধিনিষেধের আওতায় গ্রামীণফোনের সর্বনিম্ন কলরেট বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে ওই বৈঠকে।

প্রতিবেশী ভারত-পাকিস্তানসহ বিশ্বের বহু দেশে কোনো অপারেটর বাজারের একটি বড় অংশ শেয়ারের নিয়ন্ত্রণ করলেই সেটিকে এসএমপি ঘোষণা করা হয়।

বিটিআরসির প্রবিধানমালায় বলা হয়েছে- খুচরা মোবাইল সেবাসংশ্লিষ্ট বাজারের নির্ণায়কসমূহ তথা গ্রাহক সংখ্যা, অর্জিত রাজস্ব ও কমিশন কর্তৃক বরাদ্দকৃত তরঙ্গ- এই তিনটি নির্ণায়কের মধ্যে কোনো মোবাইল অপারেটর ন্যূনতম একটিতে মোট বাজারের অন্তত ৪০ শতাংশ নিয়ন্ত্রণ করলেই সেটিকে এসএমপি হিসেবে নির্ধারণের বিধান রয়েছে।

এর মধ্যে গ্রাহক সংখ্যা ও রাজস্ব আয়ের দিক থেকে এসএমপির শর্তের মধ্যে পড়েছে গ্রামীণফোন।

সে অনুসারে গত ফেব্রুয়ারিতে গ্রামীণফোনকে দেশের প্রথম এসএমপি অপারেটর হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। বাজারে গ্রামীণফোনের রাজস্ব শেয়ার ৫০ শতাংশ ও গ্রাহক ৪৭ শতাংশের বেশি বলে মনে করা হচ্ছে।

এ ব্যাপারে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, কলরেটের ওপর নিয়ন্ত্রণারোপ ছাড়া কেউ তাদের নিয়ন্ত্রণ করতে পারবে না। কিন্তু কী পরিমাণ রেট বাড়ানো হবে, তা এখনও আমরা চূড়ান্ত করিনি।

বর্তমানে যেকোনো মোবাইল অপারেটরের সর্বনিম্ন কলরেট হচ্ছে মিনিটে ০.৪৫ টাকা। মূল্য সংযোজন ও অন্যান্য কর যোগ করলে সেটি বেড়ে দাঁড়ায় ০.৫৪ টাকা।

তবে বাজারের গড় কলরেটের চেয়ে গ্রামীণফোনেরটা এমনিতেই বেশি। বাজারের গড় কলরেট হচ্ছে ০.৭০ টাকা। সে ক্ষেত্রে গ্রামীণফোনের ডেটা বা উপাত্ত চার্জ বাড়ানো হতে পারে।

গ্রাহকদের দণ্ডিত করা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে মোস্তাফা জব্বার বলেন, নম্বর পরিবর্তন না করে অন্য অপারেটরের সেবা নেয়ার সুযোগ আমাদের আছে। কাজেই যদি গ্রাহক মনে করেন, এটির কলরেট গ্রহণযোগ্য নয়, তবে সহজেই তারা অন্য নেটওয়ার্ক বেছে নিতে পারেন। এতে কোনো সমস্যা হওয়ার কথা নয়।

বৈঠকে গ্রামীণফোনের সেবার মান বাড়ানোর দাবির বিষয়েও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। নতুবা নতুন গ্রাহক পাওয়ার ক্ষেত্রে তাদের বাধার মুখে পড়তে হতে পারে।

তিনি বলেন, অপারেটরটির প্রতি আরও বিধিনিষেধ বসাবে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। সরকারের সঙ্গে আলাপের পরেই গ্রামীণফোনকে এসব বিধিনিষেধের মুখোমুখি হতে হবে।

এসএমপি ঘোষণার পর গত ১৮ ফেব্রুয়ারি গ্রামীণফোনের ওপর চারটি বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়। ইতিমধ্যে যা আদালতে চ্যালেঞ্জ করেছে অপারেটরটি।

গ্রামীণফোনকে ১ মার্চ থেকে এসব বিধিনিষেধ মেনে চলতে বলেছে বিটিআরসি। যাতে পণ্য ও সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যেকোনো বিশেষ চুক্তি সইয়ে প্রতিষ্ঠানটির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে।

বর্তমানে কেবল গ্রামীণফোন গ্রাহকদের জন্য নতুন সেবার প্রস্তাব দিতে পারে কোনো প্রতিষ্ঠান, এ রকম কোনো চুক্তি নিয়ে আলোচনায় বসতে অন্য অপারেটরদের নিষেধ করা হয়েছে।

গ্রামীণফোনের কলড্রপ ২ শতাংশের বেশি হতে পারবে না বলেও বিধিনিষেধে বলা হয়েছে। বিটিআরসির প্রতিবেদন বলছে, গত ৬ থেকে ৮ নভেম্বর গ্রামীণফোনের কলড্রপ ছিল ৩.৩৮ শতাংশ, যা তাদের প্রতিদ্বন্দ্বীদের তুলনায় অনেক বেশি।

আধিপত্য বজায় রাখতে গ্রামীণফোনকে দেশজুড়ে বিজ্ঞাপন প্রচার না করতে বলা হয়েছে। এ ছাড়া নম্বর পরিবর্তন না করে অন্য অপারেটরে ব্যবহারের সেবা (এমএনপি) সুবিধার আওতায় গ্রামীণফোন ছাড়তে গ্রাহকদের সহজ করে দেয়া হয়েছে।

বর্তমানে যদি কোনো গ্রাহক একটি নেটওয়ার্ক ছাড়তে চান, তবে তাদের ৯০ দিন অপেক্ষা করতে হবে। কিন্তু একই গ্রাহক মাত্র ৩০ দিনের মাথায় গ্রামীণফোন ছাড়তে পারবেন।

কিন্তু আদালতের রায় গ্রামীণফোনের অনুকূলে আসায় চারটির মধ্যে তিনটি বিধিনিষেধই মানতে হচ্ছে না। কেবল বিজ্ঞাপনের ক্ষেত্রে অপারেটরটির ওপর নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকছে।

বৈঠকে গ্রামীণফোনের নিরীক্ষা ইস্যুতে আরও কঠোর হওয়ার কথা বলা হয়েছে।

সৌজন্যে:  যুগান্তর

সিলেটভিউ ২৪ডটকম/১৮ এপ্রিল ২০১৯/মিআচ

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   সদরকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে জৈন্তাপুর
  •   চার বছরেও জুড়ীর বরইতলী কমিউনিটি ক্লিনিকের তালা খুলেনি
  •   আফগান প্রেসিডেন্টের সমাবেশে আত্মঘাতী হামলায় নিহত ২৪
  •   বিয়ানীবাজারে ‌‘চেতনায় বাংলাদেশ’ ম্যুরালের উদ্বোধন
  •   গোয়াইনঘাটের আলীরগাঁও ইউনিয়ন বিভক্তি
  •   ফেঞ্চুগঞ্জে আবারও ট্রেন লাইনচ্যুত
  •   বড়লেখায় সন্ধ্যায় নিখোঁজ, সকালে পুকুরে মিললো লাশ
  •   বড়লেখায় ৩৭৫ কার্টন বিদেশি সিগারেটসহ আটক ১
  •   রাব্বানী ডাকসু থেকে পদত্যাগ না করলে ব্যবস্থা: ভিপি নুর
  •   চাঁদাবাজির অভিযোগে ঢাকা উত্তর ছাত্রলীগের সহসভাপতি বহিষ্কার
  •   ছাত্রদলের কাউন্সিল ইস্যুতে সন্ধ্যায় বিএনপির জরুরি বৈঠক
  •   স্বাধীন বাংলার উন্নয়ন ও বিচক্ষণ নেত্রী শেখ হাসিনা
  •   বিভাগীয় শহরে হচ্ছে ১০০ শয্যাবিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ ক্যান্সার চিকিৎসাকেন্দ্র
  •   বিশ্বনাথে পরিবহন শ্রমিকদের ধর্মঘট প্রত্যাহার
  •   হবিগঞ্জের বাঘাসুরা ইউপির সাবেক সদস্য খুর্শেদ আলীর ইন্তেকাল
  • সাম্প্রতিক আইসিটি খবর

  •   মোবাইল ফোনকে টিভির রিমোট বানানোর উপায়
  •   ফাঁকির মামলায় গুগলকে ৫৫ কোটি ডলার জরিমানা
  •   তীব্র গরম থেকে রক্ষা পেতে এবার বাজারে আসছে এসি লাগানো টি-শার্ট
  •   গুগল-ফেসবুকে বাংলাদেশের অপারেটরদের বিজ্ঞাপন ব্যয় আসলে কত?
  •   বন্ধ হয়ে যাচ্ছে ফেসবুকের গ্রুপ চ্যাট সেবা
  •   বিশ্বের সবচেয়ে ছোট ল্যাপটপ!
  •   ফেসবুক ব্যবহারে আকস্মিক সমস্যা
  •   আতা ফলের পাতায় মরবে মশা, দাবি বিজ্ঞানীদের
  •   ফেসবুকের নতুন কৌশল, বিপাকে ভুয়া অ্যাকাউন্টধারীরা
  •   গুগলে ম্যাপে বাংলাদেশিদের জন্য ৩টি নতুন ফিচার
  •   পাওনা আদায়ে ইন্টারনেট স্পিড স্লো করার প্রতিবাদ জানালো গ্রামীণফোন
  •   ফেসবুক-ইনস্টাগ্রাম-হোয়াটস অ্যাপে হঠাৎ করে সমস্যা
  •   বিশ্বজুড়ে ফের ফেসবুক ডাউন
  •   ইয়াহু মেইল ব্যবহারকারীদের জন্য রয়েছে অশনিসংকেত
  •   মোবাইল গ্রাহকদের জন্য দুঃসংবাদ!