আজ বুধবার, ১২ অগাস্ট ২০২০ ইং

শ্রীলঙ্কায় মুসলিমদের মৃতদেহ পোড়ানোর বিরুদ্ধে পিটিশন

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-০৭-০৫ ২৩:০৪:৩৪

সিলেটভিউ ডেস্ক :: শ্রীলঙ্কায় করোনাভাইরাসে মারা যাওয়া মুসলিমদের মরদেহ পুড়িয়ে ফেলার ওপর জোর দিচ্ছে কর্তৃপক্ষ। সংখ্যালঘু মুসলিমরা এর নিন্দা জানিয়ে বলছেন মহামারির সুযোগ নিয়ে তাদের সাথে বৈষম্যমূলক আচরণ করা হচ্ছে। রাজধানী কলম্বোতে তিন সন্তানের মা ফাতিমা রিনোজা, বয়স ৪৪, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার সন্দেহে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন মে মাসের শুরুতে। খবর বিবিসি বাংলার।

তার স্বামী মুহাম্মদ শাফিক বলেন, “কর্মকর্তাদের সাথে নিয়ে পুলিশ ও সামরিক বাহিনীর লোকেরা বাড়িতে চলে এলো। আমাদের বের করে দিয়ে জীবাণুনাশক ছিটানো হলো। আমাদেরকে তারা কিছু বলেনি। তিন মাসের বাচ্চাকেও পরীক্ষা করা হলো এবং তারা আমাদেরকে কোয়ারেন্টিন সেন্টারে নিয়ে গেল কুকুরের মতো।”

কোয়ারেন্টিনে থেকেই পরিবারটি খবর পেল যে ফাতিমা মারা গেছেন। বড় ছেলেকে বলা হলো হাসপাতালে গিয়ে মায়ের মৃতদেহ শনাক্ত করতে। তাকে বলা হলো করোনাভাইরাসে মারা যাওয়ার কারণে ফাতিমার মৃতদেহ পরিবারের কাছে ফেরত দেওয়া হবে না। এর পরিবর্তে তাকে বাধ্য করা হলো একটি কাগজে সই দিতে যেখানে ফাতিমাকে পুড়িয়ে ফেলার অনুমতি দেওয়ার কথা বলা হয়েছে। মুসলিমদের মরদেহ দাহ করার এই বিধানের বিরুদ্ধে পিটিশন দায়ের করা হয়েছে আদালতে। এবিষয়ে শুনানি শুরু হবে ১৩ই জুলাই।

সিলেটভিউ২৪ডটকম/৫ জুলাই ২০২০/ডেস্ক/মিআচৌ

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন