আজ মঙ্গলবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২০ ইং

পছন্দের ছেলের সঙ্গে বিয়ে দিতে রাজি না হওয়ায় মাকে হত্যা করে মেয়ে

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-০১-২৮ ১৮:৫৫:৪৯

সিলেটভিউ ডেস্ক :: পছন্দের ছেলের সঙ্গে বিয়ে দিতে রাজি না হওয়ায় পূর্ব পরিকল্পিতভাবে মা মাহমুদা বেগমকে (৪৫) হত্যা করে মেয়ে জুলেখা আক্তার জ্যোতি।

বুধবার সকাল ১০টার দিকে মানিকগঞ্জ শহরের দক্ষিণ সেওতা এলাকায় নিজ বাড়িতে প্রেমিক ও ভাড়াটিয়া খুনি দিয়ে শ্বাসরোধ করে খুন করা হয় তাকে। এই হত্যায় অংশ নেয় জ্যোতির প্রেমিক নাঈম ইসলাম এবং তার ৩ সহযোগী।

সোমবার বিকালে মানিকগঞ্জ চিফ জুডিশিয়াল আদালতের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শাকিল আহমেদের কাছে ১৬৪ ধারায় দেয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে এ সব কথা জানায় গ্রেফতারকৃত জ্যোতি, নাইম ও নাঈমের সহযোগী রাকিব।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মানিকগঞ্জ সদর থানার এসআই শামীম আল মামুন জানান, কথাবার্তায় অসংলগ্নতা ধরা পড়ায় ঘটনার দিনই জ্যোতিকে আটক করা হয়। পরে তার তথ্যেরভিত্তিতে আটক করা হয় প্রেমিক নাঈম ও তার বন্ধু রাকিবকে। অন্য দু'জনকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

তিনি জানান, আদালতে হাজির করার পর জ্যোতিকে চারদিনের রিমান্ডে নেয়া হয়। সোমবার বিকালে তারা আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়।

শুক্রবার বিকালে নিহতের স্বামী জহিরুল ইসলাম আলিয়ার বাদী হয়ে মানিকগঞ্জ সদর থানায় মেয়ে জ্যোতি আক্তার, তার কথিত প্রেমিক নাঈম ইসলাম এবং তার সহযোগী রাকিব ও অন্য ২ সহযোগীর বিরুদ্ধে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে হত্যাকাণ্ডের অভিযোগ দায়ের করেন।

শুক্রবার রাতে রিমান্ডে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করলে জ্যোতি আক্তার তার মায়ের হত্যাকাণ্ডের ব্যাপারে বিস্তারিত তথ্য প্রদান করে। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে শুক্রবার রাতেই তার কথিত প্রেমিক কেরানীগঞ্জের আরাকুল গ্রামের খোরশেদ আলমের ছেলে নাঈম ইসলাম (২৫) এবং তার সহযোগী একই গ্রামের মৃত আবদুল বারেকের ছেলে রাকিবকে (২৫) গ্রেফতার করে পুলিশ। হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত আরও দুই সহযোগীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে জানান তিনি।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আরও বলেন, জ্যোতির সঙ্গে মোবাইল ফোন-ফেসবুক-ম্যাসেঞ্জারের আলাপচারিতায় ৮ মাস আগে ভোলা জেলার নির্মাণ শ্রমিক নাঈমের সঙ্গে জ্যোতির প্রেমের এবং দৈহিক সম্পর্ক গড়ে উঠে। তার সঙ্গে বিয়ে দিতে নারাজ হন মা। তাই তিন মাস আগে জ্যোতি ও নাঈম পরিকল্পনা করে তাকে হত্যা করার।

পরিকল্পনা অনুযায়ী মঙ্গলবার রাতেই নাঈম ও তার ৩ সহযোগী জ্যোতির ঘরে প্রবেশ করে। রাতে কয়েক দফা চেষ্টা করেও হত্যার সুযোগ পায়নি। সকাল ৭টার দিতে জ্যোতির বাবা প্রাতঃভ্রমণে বের হলে তারা মাহমুদা বেগমকে হত্যা করে।

সৌজন্যে :: যুগান্তর
সিলেটভিউ২৪ডটকম/২৮ জানুয়ারি ২০২০/জিএসি

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   বিশ্বনাথের মিয়ারবাজারে রক্তদাতাদের সম্মাননা প্রদান
  •   পাইলট স্কুলকে ২৪০ রানে হারিয়ে সেমিতে সরকারি শিশু পরিবার
  •   জৈন্তাপুরে ‘মৃত প্রায়’ গরু জবাই, সিলেটে পাঠানোর সময় পড়লো ধরা
  •   বিশ্বনাথে স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতার মানহানীর অভিযোগে যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মামলা
  •   বিমানবন্দরে লন্ডন আ'লীগের আইন সম্পাদক এনামকে সংবর্ধনা
  •   পাপিয়ার ঝড়ে ফের সেলিম প্রধান
  •   পাপিয়া-সুমনকে নিয়ে আওয়ামী লীগ নেতাদের দোষারোপের খেলা
  •   এবার ইরানের উপ-স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনায় আক্রান্ত
  •   বিশ্বনাথে রামসুন্দর-২০০১ ব্যাচের শিক্ষার্থী আবদুস সামাদ সংবর্ধিত
  •   দেশের সবচেয়ে বড় বিমানবন্দর হবে কক্সবাজারে
  •   ইসহাক কাজল আজীবন শ্রমজীবি মানুষের মুক্তির কথা বলে গেছেন: মেনন
  •   বিশ্বনাথে শিক্ষার্থীদের মাঝে ড্রেস-ব্যাগ-ছাতা বিতরণ
  •   ভারতে ধর্মীয় স্বাধীনতা নিয়ে মোদির সঙ্গে কথা বলেছেন ট্রাম্প
  •   এশিয়া একাদশে নেই কোনো পাকিস্তানি ক্রিকেটার
  •   মুজিববর্ষ: এশিয়া ও বিশ্ব একাদশের হয়ে যারা খেলবেন
  • সাম্প্রতিক জাতীয় খবর

  •   পাপিয়ার ঝড়ে ফের সেলিম প্রধান
  •   পাপিয়া-সুমনকে নিয়ে আওয়ামী লীগ নেতাদের দোষারোপের খেলা
  •   দেশের সবচেয়ে বড় বিমানবন্দর হবে কক্সবাজারে
  •   পাপিয়ার কল লিস্টে ১১ মন্ত্রী
  •   পাপিয়ার বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী জানতেন: ওবায়দুল কাদের
  •   হোটেল ওয়েস্টিনের সুইমিংপুলে বাঈজী পাপিয়ার জলকেলির ভিডিও ভাইরাল
  •   মুখ খুলছেন পাপিয়া, আতঙ্কে ঘনিষ্ঠরা
  •   এনু-রুপনের সিন্দুকে মিলল সাড়ে ২৬ কোটি টাকা ও ১ কেজি সোনা
  •   শাহজালাল বিমানবন্দরে বড় বিপদ থেকে রক্ষা
  •   পাপিয়ার এক হাতে কা'বা, অন্য হাতে মন্দির!
  •   যা মিলল পাপিয়ার মোবাইল ফোনে
  •   ৭ মার্চ জাতীয় দিবস ঘোষণা করে হাইকোর্টের রায়
  •   সিঙ্গাপুর থেকে ফেরত আসার শঙ্কায় বাংলাদেশি শ্রমিকরা
  •   স্বামীর মার খান দেশের ২৫ শতাংশ নারী
  •   আবারও ঝুলে গেল মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার