দুই মাসের সফরে লন্ডন গেলেন খালেদা

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৭-০৭-১৫ ২২:২০:০১

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া চিকিৎসার জন্য লম্বা সফরে যুক্তরাজ্যের রাজধানী লন্ডনে গেছেন। তিনি সেখানে প্রায় দুই মাস অবস্থান করবেন বলে জানা গেছে। ২০০৬ সালে ক্ষমতা হারানোর পর যুক্তরাজ্যে খালেদা জিয়ার এটি তৃতীয় সফর।

ব্যক্তিগত এই সফরের ফাঁকে ফাঁকে দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ও বড় ছেলে তারেক রহমানের সঙ্গে বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনার পর গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেবেন বিএনপি চেয়ারপারসন। এজন্য ব্যক্তিগত সফর হলেও এটাকে রাজনৈতিকভাবে ‘গুরুত্বপূর্ণ’ হিসেবে দেখছেন বিশ্লেষকরা। 

শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় ঢাকা হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে এমিরেটস এয়ারলাইন্সের ইকে ৫৮৭ ফ্লাইটে করে লন্ডনের উদ্দেশে যাত্রা করেন খালেদা জিয়া। তার সঙ্গে রয়েছেন একান্ত সচিব এবিএম আবদুস সাত্তার ও গৃহপরিচারিকা ফাতেমা বেগম।

একই বিমানে লন্ডন গেছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল আউয়াল মিন্টুর ছেলে দলের নির্বাহী কমিটির সদস্য তাবিথ আউয়াল। এছাড়া গতকাল শুক্রবার দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ঢাকা থেকে এবং ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল আউয়াল মিন্টু ব্যাংকক থেকে লন্ডন গেছেন।

লন্ডনে চোখ ও পায়ের চিকিৎসা করাবেন বিএনপি চেয়ারপারসন। পুরো সময়টা তিনি তারেক রহমানের বাসায় অবস্থান করবেন। এছাড়া সফরে যুক্তরাজ্য বিএনপি, যুক্তরাজ্য প্রবাসী বাংলাদেশি কমিউনিটির সঙ্গে কয়েকটি অনুষ্ঠানে অংশ নেয়ার কথা রয়েছে খালেদা জিয়ার।

সফর শেষে খালেদা জিয়া কবে দেশে ফিরবেন তা এখনো নিশ্চিত করে বলতে পারেনি কেউ। তবে ধারণা করা হচ্ছে, ঈদুল আজহার আগেই তিনি দেশে ফিরতে পারেন। বিএনপির চেয়ারপারসনের কার্যালয়ের এক কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে বলেন, রাতে ম্যাডাম লন্ডন যাচ্ছেন। তবে কবে ফিরবেন তা জানি না।

সর্বশেষ ২০১৫ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর চিকিৎসার জন্য লন্ডনে গিয়েছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসন। সেখানে বড় ছেলে তারেক রহমানসহ তার পরিবার এবং প্রয়াত ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকোর স্ত্রী ও মেয়েদের নিয়ে ঈদ উদযাপন করেন তিনি। ৬৭ দিন পর আবার দেশে ফিরে আসেন খালেদা জিয়া। এর আগে ২০১১ সালে যুক্তরাষ্ট্র ঘুরে দেশে ফেরার পথে বড় ছেলে তারেককে দেখতে লন্ডনে গিয়েছিলেন খালেদা জিয়া।

লন্ডনে বর্তমানে তারেক রহমান তার স্ত্রী ডা. জোবাইদা রহমান, মেয়ে জাইমা রহমান ছাড়াও প্রয়াত আরাফাত রহমান কোকোর স্ত্রী শামিলা রহমান সিঁথি, তার দুই মেয়ে জাহিয়া রহমান ও জাফিয়া রহমানও রয়েছেন।

বিএনপির জ্যেষ্ঠ ভাইস চেয়ারম্যান তারেক আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যাচেষ্টার মামলায়  (২১ অগাস্ট গ্রেনেড হামলা) হুলিয়া নিয়ে গত নয় বছর ধরে স্ত্রী-সন্তানকে নিয়ে লন্ডনে রয়েছেন।

বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস সচিব মারুফ কামাল খান জানান, দুবাইয়ে দুই ঘণ্টার যাত্রাবিরতির পর রবিবার সকালে লন্ডন পৌঁছাবেন খালেদা জিয়া।

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   এতিম শিশুদের লালন পালন করছেন অসহায় ফুফু
  •   খালেদার মুক্তির দাবিতে রাজধানীতে বিএনপি’র মানববন্ধন
  •   রাজধানীতে এটিএম কার্ড জালিয়াতির মূলহোতা আটক
  •   চাঁদাদাবি ও হত্যার হুমকী: ছয় জনের সশ্রম কারাদণ্ড
  •   রাজধানীতে বিএনপি’র কর্মসূচির জায়গা পরিবর্তন
  •   ৬ দফা দাবি নিয়ে দিরাই উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের বিভিন্ন কর্মসূচী
  •   শাবি অফিসার্স এসোসিয়েশনের প্রয়াস’র মোড়ক উম্মোচন
  •   সিলেটে বৃষ্টির সম্ভাবনা, তাপমাত্রা অপরিবর্তিত
  •   ধামরাইয়ে সেতুর ধস ও ভাঙন ঠেকাতে বালুর বস্তা
  •   রাজধানীতে অগ্নিকান্ডে একই পরিবারের ৩ জন দগ্ধ
  •   কিশোরগঞ্জে ইয়াবাসহ অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ সদস্য আটক
  •   বরগুনায় আগুনে পুড়ে ছাই ১১ দোকান
  •   বড়লেখায় জেলা কমিটিকে স্বাগত জানিয়ে ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল
  •   মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রলীগে স্থান পেলেন বড়লেখার তিনজন
  •   গান পাগল, পাগল হাসান
  • সাম্প্রতিক রাজনীতি খবর

  •   খালেদার মুক্তির দাবিতে রাজধানীতে বিএনপি’র মানববন্ধন
  •   রাজধানীতে বিএনপি’র কর্মসূচির জায়গা পরিবর্তন
  •   পাসপোর্ট ফেরত দিয়েছেন তারেকের স্ত্রী-কন্যাও
  •   ভারত সফরের ‌‌সব বলবেন ওবায়দুল কাদের
  •   'খালেদা জিয়া ও তারেক রহমান নির্বাচনে অংশ নিতে পারবে না'
  •   মোদির সঙ্গে আ.লীগ নেতাদের সৌজন্য সাক্ষাৎ
  •   পাবনায় ছাত্রলীগ কর্মীর গলা কাটা মরদেহ উদ্ধার
  •   সাধারণ ছাত্রীদের সঙ্গে সেই ছাত্রলীগ নেত্রীর মারামারি
  •   বিএনপির অনেক নেতাই এখন জাতীয় পার্টিতে যোগ দেবে: এরশাদ
  •   সাধারণ ছাত্রীদের সঙ্গে ছাত্রলীগ নেত্রীর মারামারি
  •   বিএনপি-জামায়াতের অপপ্রচারের উপযুক্ত জবাব দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী
  •   সর্বনাশা বিয়ের ফাঁদ
  •   'জিয়া পরিবারকে ধ্বংস করাই প্রধানমন্ত্রীর লক্ষ্য'
  •   'খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসায় সরকার সব ব্যবস্থা নেবে'
  •   বরিশালে বাসদের আহ্বায়ক-সদস্য সচিবসহ নেতা-কর্মীদের মুক্তির দাবি