আজ রবিবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বিভিন্ন দেশের কনসাল জেনারেলদের পত্র দিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৬-১১ ১৪:৫৮:৫৩

সিলেটভিউ ডেস্ক :: রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের জন্য সহায়ক পরিবেশ সৃষ্টি, প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া তদারকিসহ মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের পুনঃপ্রতিষ্ঠায় পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের সরকার ও সিভিল সোসাইটিকে সংশ্লিষ্ট করতে বাংলাদেশে কর্মরত বিভিন্ন দেশের অনারারি কনসাল জেনারেল এবং বিদেশে বাংলাদেশের অনারারি কনসাল জেনারেলদের অনুরোধ করলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ. কে. আব্দুল মোমেন।

সম্প্রতি লেখা এক পত্রে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তচ্যুত বিশাল রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর বোঝা অনির্দিষ্টকালের জন্য বহন করতে বাংলাদেশ সক্ষম নয়। যুগের পর যুগ মৌলিক অধিকার থেকে বঞ্চিত ও দুর্দশাগ্রস্ত এ জনগোষ্ঠীর অবস্থান এ দেশে দীর্ঘায়িত হলে এ অঞ্চলের নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা হুমকির  মুখে পড়তে পারে।

ড. মোমেন বলেন, রোহিঙ্গা সমস্যার স্থায়ী সমাধানের উদ্দেশ্যে বাংলাদেশ মিয়ানমারের সাথে তিনটি চুক্তি স্বাক্ষরসহ ১৯৭৮ ও ১৯৯২ সালের মত মিয়ানমারের সাথে দ্বিপাক্ষিকভাবে এ সমস্যা সমাধানে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে আন্তরিকভাবে চেষ্টা করা হচ্ছে। তারপরও দ্বিপাক্ষিক চুক্তি অনুসরণ করে নিরাপদ, সম্মানজনক ও স্বেচ্ছা প্রত্যাবাসনের জন্য রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের জন্য দৃশ্যমান সহায়ক পরিবেশ সৃষ্টিতে মিয়ানমারের ব্যর্থতা এবং মিয়ামারের চরম অনাগ্রহের কারণে এখনও রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর স্বদেশে প্রত্যাবাসন শুরুর কার্যক্রম অনিশ্চিয়তার মধ্যেই আছে। এ বিষয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সক্রিয় ভুমিকা প্রত্যাশা করে বাংলাদেশ।

তিনি আরো বলেন, অনেক চ্যালেঞ্জ ও বাঁধা সত্ত্বেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানবিক দিক বিবেচনায় এই অসহায় লোকদের অস্থায়ী আশ্রয় দেয়ার মত অত্যন্ত সাহসী পদক্ষেপ গ্রহণ করেন।
সিলেটভিউ২৪ডটকম/১১ জুন ২০১৯/ডেস্ক/ডিজেএস

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   যুক্তরাষ্ট্রের চালানো অভিযানে ওসামা বিন লাদেনের ছেলে হামজা নিহত: ট্রাম্প
  •   পিযুষের মুক্তির দাবি জানালেন পংকজ দেবনাথ
  •   ১৭ লাখ ৯০ হাজার টাকার জাল নোটসহ রোহিঙ্গা যুবক আটক
  •   রাজশাহীর সারদায় পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী
  •   শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষে কাঁচপুর রণক্ষেত্র
  •   ভুল সংশোধনের কথা বলে লিখে নিল ১৩ শতক জমি
  •   রোগ থেকে সেরে ওঠার পর স্বাভাবিক পর্যায়ে ফিরে আসতে করণীয়
  •   কোনও ক্যাডার বাহিনী পোষা যাবে না, নেতাকর্মীদের শেখ হাসিনা
  •   সাজা শেষে ৪১ হাজার অভিবাসীকে ফেরত পাঠালো মালয়েশিয়া
  •   শীঘ্রই আমিরাতের আজমানে বাংলাদেশ স্কুল প্রতিষ্ঠা হচ্ছে
  •   মুসার দায়ের কুপে আহত পুলিশ সদস্য এখন কিছুটা আশংকামুক্ত
  •   শাহজালাল কারাতে ট্রেনিং সেন্টারের শিক্ষার্থীদের সনদ বিতরণ
  •   কুমারগাঁওয়ে রেস্টুরেন্টে বাস শ্রমিকদের হামলা-ভাঙচুর, আহত ১
  •   দুবাইয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় কানাইঘাটের আলতাফ নিহত
  •   পূর্ব ধলাই স্টোন সাপ্লাইয়ার্স ব্যবসায়ী সমিতির কমিটি অনুমোদন
  • সাম্প্রতিক সিলেট খবর

  •   পিযুষের মুক্তির দাবি জানালেন পংকজ দেবনাথ
  •   শাহজালাল কারাতে ট্রেনিং সেন্টারের শিক্ষার্থীদের সনদ বিতরণ
  •   কুমারগাঁওয়ে রেস্টুরেন্টে বাস শ্রমিকদের হামলা-ভাঙচুর, আহত ১
  •   দুবাইয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় কানাইঘাটের আলতাফ নিহত
  •   পূর্ব ধলাই স্টোন সাপ্লাইয়ার্স ব্যবসায়ী সমিতির কমিটি অনুমোদন
  •   হৃদয়ে ৭১ ফাউন্ডেশনের ১৬৬ তম সাপ্তাহিক পাঠচক্র অনুষ্ঠিত
  •   সিলেট ইসকন মন্দিরে শ্রীমদ্ভাগবত জয়ন্তী উৎসব সম্পন্ন
  •   ব্রিটেনের কারি হাউস বাঁচাতে চালু হচ্ছে ভিন্দালু ভিসা
  •   টিম সিলেট বয়েজ’র জার্সি উন্মোচন
  •   সিলেটে স্বেচ্ছাসেবক লীগের জনসভা অনুষ্ঠিত
  •   জৈন্তাপুরে টোকেনধারী সিএনজি অটোরিক্সা আটক
  •   সিলেট বাতিঘরে ‘দি ক্রনিক্যালস অব ১৯৭১’ নিয়ে মুক্ত আলোচনা
  •   করিম উল্লাহ মার্কেট ঈদ উৎসব র‌্যাফেল ড্র'র পুরস্কার বিতরণ সম্পন্ন
  •   মোগলগাঁও খুরশিদ আলী উচ্চ বিদ্যালয়ে আলোচনাসভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত
  •   নন্দিরগাঁও ইউনিয়ন ক্রীড়া ফাউন্ডেশনের কমিটি গঠন