আজ শনিবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৯ ইং

সিলেটের পয়েন্টে পয়েন্টে কোরবানির মাংসের হাট

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৮-১২ ১৮:৩৯:০৭

নিজস্ব প্রতিবেদক :: ঈদের দিন সিলেটের বিভিন্ন পয়েন্টে বসেছে কোরবানির মাংসের ভ্রাম্যমাণ হাট। এসব হাটের বিক্রেতারা হলেন ভিক্ষুক কিংবা অস্বচ্ছল মানুষ। এসব বিক্রেতারা সারাদিন সিলেট নগরীর বিভিন্ন বাসা-বাড়ি থেকে মাংস সংগ্রহ করেছন। বিক্রেতাদের মধ্যে রয়েছেন একদিনের কসাই যারা কোরবানির পশু কেটেকুটে বখশিস হিসেবে মাংস পেয়েছেন। আবার অনেকেই স্বচ্ছল আত্মীয়-স্বজনদের কাছে পাওয়া মাংস টাকার প্রয়োজনে বিক্রি করেছেন।

এই ভ্রাম্যমাণ মাংসের হাটের মূল ক্রেতা সাধারণত নিম্ন আয়ের মান্ষু ও হোটেল ব্যবসায়ী। কম দামে মাংস কিনতে পেরে সন্তুষ্টি দেখা যায় তাদের চোখে-মুখে।

আজ সোমবার (১২ আগস্ট) ঈদুল আজহার দিনে সিলেট নগরী ঘুরে দেখা গেছে একই ধরণের চিত্র। পাড়া-মহল্লা, বাজার, ফুটপাত জুড়ে যে যেখানে সুযোগ পেয়েছেন, সেখানেই বসে গেছেন মাংস নিয়ে।

তবে পেশাদার কোনও মাংস ব্যবসায়ী এ হাট বসাননি। মৌসুমি কসাই, দিনমজুর, দুস্থ্, ভিখারি-গরিব, শিশু যারাই কিছু মাংস জোগাড় করতে পেরেছেন, তা নিয়েই বসে গেছেন বিক্রি করতে। যারা আজকের দিনে শ্রম বিক্রি করেছেন, কোরবানিদাতাদের কাছ থেকে মাংস পেয়েছেন, তারাইএ মাংসের হাট বসিয়েছেন। মাংস বিক্রেতা হিসেবে কিছু শিশুকেও দেখা গেছে।

শুধু তাই নয়, নগরীর বিভিন্ন বাসাবাড়িতে গরু জবাই ও মাংস প্রস্তুতের বিভিন্ন কাজ করা কসাইরাও বখশিশ হিসেবে পাওয়া মাংস বিক্রি করে দেন।

সিলেট নগরীর জেলরোড, বন্দরবাজারের বিভিন্ন স্থান, জিন্দাবাজার, সুরমা পয়েন্ট, হাউজিং স্টেইট গলির ভেতর, জালালাবাদ আবাসিক এলাকার মুখে, আম্বরখানা পয়েন্ট, দরগামহল্লা, সুবিদবাজারসহ বিভিন্ন পয়েন্টে পলিথিনের প্যাকেটে কিংবা খোলা অবস্থায় ভাগ করে মাংস সাজিয়ে রাখা হয়েছে। এই এক ভাগ মাংস বিক্রি হচ্ছে ৪০০-৫০০ টাকায়।

এসব ভ্রাম্যমান হাটের ক্রেতারা মূলত নিম্ন আয়ের সাধারণ মানুষ। তবে সিলেটসহ আশপাশ এলাকার বিভিন্ন হোটেল থেকে এসব মাংস কিনতে দেখা যায়।

বিক্রেতাদের অনেকে জানালেন, সারাদিন ঘুরে ৩-৪ কেজির মত মাংস সংগ্রহ করা যায়। কিন্তু এসব মাংস রাখার জায়গা না থাকায় কিংবা কিছু টাকা লাভের জন্যই সংগ্রহ করা মাংস বিক্রি করে দেন তারা।

সিলেটভিউ২৪ডটকম/১২ আগস্ট ২০১৯/শাদিআচৌ

@

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   স্ত্রী পালিয়ে যাওয়ায় শ্যালিকাকে অপহরণ করে ধর্ষণ
  •   অটোরিকশার জন্য দুইবন্ধু মিলে খুন করে নাঈমকে
  •   আজাদ কাশ্মীর দখলের স্বপ্ন না দেখতে ভারতকে হুশিয়ার করল পাকিস্তান
  •   দেখে নিন টাইগারদের নতুন কোচের ক্যারিয়ার
  •   টাইগারদের হেড কোচ দক্ষিণ আফ্রিকার ডোমিঙ্গো
  •   ধ্বংসস্তূপে খেটে খাওয়া মানুষের আর্তনাদ
  •   বয়ফ্রেন্ডের পাশের সিট না পেয়ে বিমানবালার সঙ্গে যা করলেন ক্ষুব্ধ যাত্রী
  •   ছাতক সরকারী ডিগ্রি কলেজে জাতীয় শোক দিবস পালিত
  •   সরকারের মূলকাজ হলো বাংলাদেশের সার্বিক বিকাশ: পরিকল্পনামন্ত্রী
  •   পাকিস্তানীদের সাথে আতাত করে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়: শফিকুর চৌধুরী
  •   ছাতকে ইভটিজিংকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, নারীসহ আহত ৩০
  •   বিশ্বনাথ উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের পূর্ণ্যাঙ্গ কমিটি অনুমোদন
  •   চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে: প্রধানমন্ত্রী
  •   জনবল সংকটে বন্ধ ফেঞ্চুগঞ্জ রেলস্টেশন !
  •   কুলাউড়ায় ইভটিজিং করতে গিয়ে জনতার হাতে আটক মাদ্রাসা শিক্ষক
  • সাম্প্রতিক সিলেট খবর

  •   অটোরিকশার জন্য দুইবন্ধু মিলে খুন করে নাঈমকে
  •   ছাতক সরকারী ডিগ্রি কলেজে জাতীয় শোক দিবস পালিত
  •   সরকারের মূলকাজ হলো বাংলাদেশের সার্বিক বিকাশ: পরিকল্পনামন্ত্রী
  •   পাকিস্তানীদের সাথে আতাত করে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়: শফিকুর চৌধুরী
  •   ছাতকে ইভটিজিংকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, নারীসহ আহত ৩০
  •   বিশ্বনাথ উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের পূর্ণ্যাঙ্গ কমিটি অনুমোদন
  •   জনবল সংকটে বন্ধ ফেঞ্চুগঞ্জ রেলস্টেশন !
  •   পোনামাছ রক্ষা করার জন্য সকলের সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে: পরিকল্পনামন্ত্রী
  •   ছাতকে গলায় ফাঁস লাগিয়ে যুবতীর আত্মহত্যা
  •   অবশেষে জনতার হাতে ধরা পড়লেন জুড়ীর লম্পট শিক্ষক হাশেম
  •   জৈন্তাপুর থেকে ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক
  •   রাজনগরে প্রধান শিক্ষককে বিদায়ী ও প্রবাসীদের সংবর্ধনা প্রদান
  •   মৌলভীবাজারে ‘শ্রাবণধারায়’ বর্ষার বিদায়
  •   কথা রাখলেন ফেঞ্চুগঞ্জ পল্লীবিদ্যুতের ডিজিএম
  •   শোকের মাসে রক্তদানের ত্যাগ প্রশংসার দাবি রাখে: আসাদ উদ্দিন আহমদ