আজ বুধবার, ০৫ অগাস্ট ২০২০ ইং

জনপ্রতিনিধি না হয়েও জনদরদি প্রবাসী উস্তার মিয়া

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-০৭-১৩ ০১:০৬:১৩

রনিক পাল, ওসমানীনগর :: নিজ উদ্যোগে কাজ করে যাচ্ছেন সমাজের অবহেলিত মানুষের কল্যানে। প্রবাসে বিলাসী জীবনের মোহ ত্যাগ করে এলাকার অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো পরিনত করেছেন নেশায়। করোনার ভয়াল পরিস্থিতিতে যুক্তরাজ্যে নিজে গৃহবন্দি থেকেও এলাকার কষ্টে থাকা মানুষের চুলায় আগুন জ্বালাতে সদা ব্যাস্থ ছিলেন তিনি। পাশাপাশি এলাকার সর্বক্ষেত্রে রয়েছে যার অবদান। সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার দয়ামীর ইউনিয়নের নিজ করুয়া গ্রামে সম্রান্ত পরিবারে জন্মগ্রহনকারী যুক্তরাজ্য প্রবাসী উস্তার মিয়া।

জীবনের তাগিদে যুক্তরাজ্য পারি জমালে প্রবাসের বিলাসি জীবন আকঁরে না ধরে নারীর টানে নিজেকে জড়িয়ে রেখেছেন ইউনিয়নের শিক্ষাবিস্তারসহ জনকল্যানমূলক কর্মকান্ডে। এরই ধারাবাহিকতায় জনপ্রতিনিধি না হয়েও তিনি নিজস্ব অর্থায়নে এলাকায় করে যাচ্ছেন রাস্তা-ঘাট স্কুল মাদ্রাসাসহ ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের উন্নয়ন। অর্জন করে নিয়েছেন ইউনিয়নের সব শ্রেনী পেশার মানুষের আস্তা। অবহেলিত এলাকার উন্নয়নের স্বার্থে নিজেকে সম্পৃক্ত করেছেন যুক্তরাজ্যস্থ বিভিন্ন সমাজ সেবামূলক সংগঠনের সাথে। ফলে কখনও ব্যাক্তি উদ্যোগে আবার কখনও প্রবাসী সংগঠনের মাধ্যমে তার হাত ধরেই অব্যাহত রয়েছে এলাকার সর্বক্ষেত্রে উন্নয়ন কর্মকান্ড।

বালাগঞ্জ-ওসমানীনগর এডুকেশন ট্রাস্ট ইউকে ও দয়ামীর সমাজ কল্যাণ সংস্থা ইউকে এবং দয়ামীর ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট-ইউকের ট্রাস্টি আলহাজ্ব উস্তার মিয়ার নিজের কর্মদক্ষতায় দ্বায়িত্ব পালন করেছেন বালাগঞ্জ-ওসমানীনগর সমাজ কল্যাণ সমিতির ট্রেজারারের। ব্যাক্তিগত ও পারিবারের অর্থায়নের পাশাপাশি এসব প্রবাসী সংগঠনের মাধ্যমেই বঙ্গবীর ওসমানীর অবহেলিত দয়ামীর ইউনিয়নের সর্বক্ষেত্রে সাধিত হচ্ছে উন্নয়ন। এলাকার উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাওয়া মানবতার দরদি উস্তার মিয়ার মাধ্যমেই স্বাধীনতার পরবর্তী সময় থেকেই নিজ অর্থায়নে এলাকার গৃহহীনদের গৃহ নির্মান, গ্রামিন রাস্তার উন্নয়ন,দরিদ্রদের খাদ্য ও বস্ত্র সহায়তাসহ দয়ামীর ইউনিয়নের সরকারী বেসরকারী স্কুল-মাদ্রাসা-মসজিদের উন্নয়ন কর্মকান্ড।

তাঁর সহায়তায় এলাকার একাধিক অসহায় কন্যাদায়গ্রস্থ পিতা তাদের আদরের কন্যাকে পাত্রস্থ করতে সজ্ঞম হয়েছেন। নিজস্ব অর্থায়নে উন্নয়ন করে দিয়েছেন দয়ামীর ইউনিয়নে স্থাপিত কুরুয়া বহুমুখি উচ্চ বিদ্যালয়ের সীমানা প্রাচীর, কুরুয়া দারুল কুরআন হাফিজিয়া মাদ্রাসায় আর্থিক অনুদান, কুরুয়া ইসলামীয়া আলীম মাদ্রাসায় কক্ষ নির্মান, চুনারপাড়া মাদ্রাসা সংলগ্ন মসজিদে সীমানা প্রাচীর, ফারকুল মাদ্রাসা সংলগ্ন মসজিদে আর্থিক অনুদান, নিজ কুরুয়া মোহাম্মদীয়া জামে মসজিদে আর্থিক অনুদান, ঘোষগাও পুরাতন মসজিদে সীমানা প্রাচীরের আর্থিক সহায়তা বিভিন্ন সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানের। এলাকার একাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ব্যাক্তিগত অর্থায়নে নির্মান করে দিয়েছেন নতুন ভবন। বিশেষ করে দেশে করোনার পাদূভাব শুরুর পর থেকে দয়ামীর ইউনিয়নসহ পাশ্ববর্তী এলাকার অসহায়দের সহায়ক হয়ে উঠেছেন মানব দরদি উস্তার মিয়া।

পরিবার নিয়ে প্রবাসে গৃহবন্দি থেকে পূর্বের সঞ্চিত অর্খ থেকে দেশে থাকা আত্বীয় স্বজনদের মাধ্যমে হতদ্ররিদ্রদের বাড়ি বাড়ি পৌছে দিয়েছেন নগদ অর্থসহ খাদ্য সহায়তা। সংকটময় মূহূত্বে এলাকার গৃহবন্দি পরিবারগুলোর কল্যানে সাহায্যের হাত প্রসারিত করায় ও এলাকার সামগ্রীক উন্নয়নকর্মকান্ডে নিজেকে নিয়োজিত রাখার ফলসরুপ তিনি হয়ে উঠেছেন নিজ ইউনিয়নের সর্ব শ্রেনীর বাসিন্দাদের আপনজন। উন্নয়ন কর্মকান্ডের এই ধারাবাহিকতাকে আরোও ঢৃড করতে ২০২১ সালে অনুষ্টিত ইউনিয়ন নির্বাচনে ওসমানীনগরের ৭নং দয়ামীর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে প্রতিদন্দিতা করার জন্য ইতিমধ্যে ইউনিয়নের সাধারণ মানুষজনসহ সচেতনমহল উস্তার মিয়াকে আহব্বান জানিয়ে যাচ্ছেন বলে জানা গেছে।

দয়ামীর ইউনিয়নের একাধিক বাসিন্দারা জানান, এলাকার উন্নয়নে উজ্জল দৃষ্টান্ত উস্তার মিয়া যেকোনো সংকটে সাধারণ মানুষদের পাশে দাঁড়ানোই যেন তার কাজ। দূর্যোগময় মূহূত্ব ছাড়া দয়ামীর ইউনিয়নের উন্নয়নে তিনি নিবেদিত প্রান। ইউনিয়নের সর্ব ক্ষেত্রে তার অবদান অপূরনীয়। অত্যান্ত নিলোভ পরিছন্নবাদি উস্তার মিয়া জীবনের প্রতিটি মূহূত্ব ব্যায় করে যাচ্ছেন মানব সেবায়। বিশেষ করে সমাজের খেটে খাওয়া মানুষের হৃদয়ে জায়গা করে নেয়ার আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দয়ামীর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসাবে সর্বশ্রেনীর মানুষের সমর্থতন ও সহযোগিতা পাচ্ছেন। তিনি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলে উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় আমাদের দয়ামীর ইউনিয়নটি আরোও এক ধাপ এগিয়ে যাবে বলে আশাবাদি আমরা।

সমাজের কল্যানে নিজে উৎসর্গ রাখার প্রতিক্রিয়ায় উস্তার মিয়া বলেন, সমাজের অবহেলিত মানুষের ভাগ্যের উন্নয়নে কাজ করে যাওয়াই আমার পেশা এবং নেশা। বিশেষ করে তরুণ প্রজন্মকে সন্ত্রাস ও মাদকের হাত খেকে রক্ষা করতে তাদেরকে খেলাধূলায় উৎসাহ প্রদানসহ সামাজিক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত করাই আমার মূল লক্ষ্য। অবহেলিত দয়ামীর ইউনিয়নের পরিকল্পিত উন্নয়নই আমার জীবন যৌবনের বড় পাওয়া। মৃর্ত্যুর পূর্ব মহূত্ব পর্যন্ত যেন সমাজের নির্যাতিত নিপিরিত মানুষের কল্যানে কাজ করে যাওয়ার জন্য সর্বস্তরের মানুষের সহযোগিতা কামনা করি।

সিলেটভিউ২৪ডটকম/১৩ জুলাই ২০২০/আরপি/ডিজেএস

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সাম্প্রতিক সিলেট খবর

  •   খালেদের মাতার ইন্তেকালে ফরহাদ শামীমের শোক
  •   নুরুল আলম সিদ্দিকীর মাতার মৃত্যুতে ফয়সল চৌধুরীর শোক
  •   ছাত্রদল নেতা সৌরভের ১০তম মৃত্যুবার্ষিকীতে দোয়া ও মিলাদ
  •   ওসমানীর ল্যাবে মঙ্গলবারও ৫৫ জনের করোনা শনাক্ত
  •   জাফলংয়ে বেড়াতে এসে পানিতে তলিয়ে গেলেন মাদরাসা শিক্ষার্থী
  •   জকিগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিনের রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল
  •   করোনা : সিলেটে নতুন শনাক্ত ৫২ জন যে যে জেলার
  •   কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাবেক সহসভাপতির সুস্থতা কামনায় জকিগঞ্জে মিলাদ ও দোয়া
  •   মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সভাপতির মায়ের মৃত্যুতে ইমদাদ চৌধুরীর শোক
  •   সিলেটে নিম্ন আদালত খুলছে কাল, যাদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা