আজ বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০ ইং

এবার নবীগঞ্জে তরুণীকে ‘ধর্ষণ’ করলেন ফুফা, গ্রেফতার ২

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-১০-১৭ ১৯:৫১:১৩

নবীগঞ্জ প্রতিনিধি :: নবীগঞ্জ উপজেলায় ফুফুর কাছে সেলাই কাজ শিখতে গিয়ে ফুফার হাতে ধর্ষিত হয়েছেন ১৬ বছর বয়সী এক তরুণী। এ ঘটনায় ভিকটিমের মা বাদী হয়ে  নবীগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেছেন। মামলায় ফুফু ও তার স্বামীকে গ্রেফতার করেছে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ। পরে শনিবার দুপুরে তাদেরকে আদালতে হাজির করলে আদালত তাদের জামিন না মঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন।   
   
মামলার বিবরণে জানা গেছে, উপজেলার করগাও ইউনিয়নের শ্রীধরপুর গুমগুমিয়া গ্রামের জৈনক তরুণী তার ফুফু নাজমা বেগমের ঘরে  সেলাইয়ের (দর্জি) কাজ শিখতে যায়। গত বুধবার সন্ধ্যার সময়  নাজমা বেগমের স্বামী  আজির উদ্দিন ওই তরুণীকে অন্য একটি ঘরে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এতে সহযোগীতা করেন নাজমা বেগম। নাজমা   বেগম ওই ধর্ষণের ঘটনা তার মোবাইল দিয়ে ভিডিও ধারণ  করেন।     

মেয়েকে বাড়ীতে আনতে নাজমার বাড়ীতে (ফুফুর বাড়ী)যান মামলার বাদী ওই তরুণীর মা। তখন তারা তাকে ঘরে প্রবেশ করতে বাধা দেয় এবং তরুণীকে আটকে রাখে। এক পর্যায়ে গ্রামের লোকজন নিয়ে গিয়ে তরুণীকে উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় শুক্রবার রাতে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে নাজমা ও তার স্বামী আজিরের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। মামলার প্রেক্ষিতে নবীগঞ্জ থানার এস আই কামাল আহমেদসহ একদল পুলিশ রাতেই  অভিযান চালিয়ে নির্যাতিতার ফুফা-ফুফুকে গ্রেফতার করেন।         

গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনর্চাজ আজিজুর রহমান বলেন, মামলার প্রেক্ষিতে আসামিদের গ্রেফতার করা হয়েছে।ঘটনার তদন্ত চলছে।
 
সিলেটভিউ২৪ডটকম/১৭ অক্টোবর/ জুনেদ


শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন