আজ সোমবার, ০১ জুন ২০২০ ইং

বিদেশ ফেরত ৩৯৮ জনের সন্ধানে নবীগঞ্জের প্রশাসন

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-০৩-২৪ ১২:৫১:০৩

নবীগঞ্জ সংবাদদাতা :: হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় গত ১ মার্চ থেকে ২৩ মার্চ পর্যন্ত বিদেশ থেকে এসেছেন ৫৬৯ জন। তাদের মধ্যে মাত্র ১৭১ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। বাকি ৩৯৮ জন কী অবস্থায় আছেন, তা জানা নেই প্রশাসনের। তবে উপজেলার ১৩ ইউনিয়নে তাদের সন্ধান করা হচ্ছে। এ ছাড়া উপজেলার সব ইউপি সদস্যকে প্রধান করে একটি করে কমিটি গঠন করা হয়েছে। যারা করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে উপজেলা কমিটির কাছে প্রবাসীদের অবস্থানসহ বিভিন্ন তথ্য প্রদান করবে।

নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি বিশ্বজিত কুমার পাল এ ব্যাপারে বলেন, গত এক মাসে ৫৬৯ জন মানুষ বিদেশ থেকে নবীগঞ্জে এলেও হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন মাত্র ১৭১ জন। আমাদের কাছে ৫৬৯ জনের একটি তালিকা পাঠানো হয়েছে। কিন্তু গত ৭ মার্চ থেকে যারা দেশে এসেছে তাদেরকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার ব্যাপারে জোর দিচ্ছি, যাদের পাসপোর্টে নবীগঞ্জের ঠিকানা ব্যবহার করা হয়েছে। তবে তারা সবাই নবীগঞ্জের ঠিকানায় অবস্থান করছেন কিনা তা আমাদের জানা নেই। তালিকাটি সব ইউনিয়নে পাঠানো হয়েছে। নবীগঞ্জে অবস্থান করলে সব বিদেশ ফেরত ব্যক্তিকে পর্যবেক্ষণে আনতে উপজেলা প্রশাসন কাজ করছে। আবার অনেকেই যারা হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন বলে বলা হচ্ছে, তারাও সঠিকভাবে নিয়ম মানছেন না। সঙ্গত কারণে নবীগঞ্জে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। এ জন্য প্রতিটি ওয়ার্ডে ইউপি সদস্যদের দিয়ে একটি করে কমিটি গঠন করা হয়েছে। এ কমিটি ওয়ার্ডের বিদেশ ফেরত ব্যক্তির হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করবে। কোনো ব্যক্তি কমিটির নির্দেশনা না মানলে উপজেলা প্রশাসন তার বিরুদ্ধে আইন প্রয়োগ করবে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবদুস সামাদ বলেন, নবীগঞ্জ উপজেলা ৫০ শয্যার হাসপাতালে ৫টি বেড প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এ ছাড়া আলাদা আইসোলেশন ওয়ার্ড প্রস্তুত আছে। রোগীর সঙ্গে আসা স্বজনদের হাসপাতালে প্রবেশের ব্যাপারে কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে। করোনা সচেতনতার ব্যাপারে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ নিবিড়ভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আজিজুর রহমান জানান, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দেওয়া তথ্যানুযায়ী লুকিয়ে থাকা প্রবাসীদের সন্ধান করা হচ্ছে।

এদিকে গত রবিবার নিয়ম না মেনে বিয়ের অনুষ্ঠান আয়োজন করায় নবীগঞ্জ উপজেলার কাজির বাজারের ময়মনা কমিউনিটি সেন্টারকে ২০ হাজার টাকা ও উপজেলার গজনাইপুর গ্রামের এক ইংল্যান্ড প্রবাসীকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

‌সি‌লেট‌ভিউ২৪ডটকম/২৪ মার্চ ২০২০/শা‌কির/ডিজেএস

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন