আজ শনিবার, ২৪ অগাস্ট ২০১৯ ইং

শ্রীমঙ্গলে বাঘডাশের ৫ ছানা ফিরে পেল আপন ঠিকানা

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৫-১০ ১৬:৫১:১০

শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি :: প্রাণে বেঁচে গেলো পরিবেশের জন্য উপকারী বিপন্ন প্রজাতির নিশাচর এবং বৃক্ষচারী প্রাণী বাঘডাশের ৫টি ছানা। বন্যপ্রাণীপ্রেমী স্থানীয় ভৈরবগঞ্জ বাজার উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষক ফণিভূষণ রায় চৌধুরীর সহায়তায় এগুলো ফিরে পেয়েছে তাদের আপন ঠিকানা।

কাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শ্রীমঙ্গল পৌরশহরের মাস্টারপাড়া আবাসিক এলাকায় ফণিভূষণ রায় চৌধুরীর বাসায় ৫টি বিপন্ন ছোট বাঘডাশের ছানা শিশুদের হাতে ধরা পড়ে। পার্শ্ববর্তী স’মিলের পুরাতন কাঠগুলো সরানোর সময় ছানাগুলো বেরিয়ে এসে আত্মরক্ষার্থে এদিক-ওদিক ছুটোছুটি করতে থাকে। খবর পেয়ে ফণিভূষণ ছোট বাঘডাশের ছানাগুলো উদ্ধার করে নিজের কাছে আগলে রাখেন।

ফণিভূষণ রায় চৌধুরী বলেন, ‘ছানাগুলোর বিষয়ে বন্যপ্রাণী সেবা ফাউন্ডেশনের পরিচালক সজল দেবের সঙ্গে যোগাযোগ করি। তিনি যেখান থেকে ছানাগুলো উদ্ধার করা হয়েছে সেখানে রেখে আসার পরামর্শ দেন। পরে ছানাগুলো সজল দেবের পরামর্শে ওই স্থানে রেখে আসি। পরে মা বাঘডাশ এসে ছানাগুলো নিয়ে যায়।’

বন্যপ্রাণী সেবা ফাউন্ডেশনের পরিচালক সজল দেব  বলেন, ‘এই ছানাগুলো প্রকৃতিতে বেঁচে যাবার শতভাগ সম্ভাবনা রয়েছে। আমরা এভাবেই বন্যপ্রাণীদের রেসকিউ করে থাকি।’
 
জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক এবং বন্যপ্রাণী বিশেষজ্ঞ ড. মনিরুল এইচ খান  বলেন, ‘‘এগুলো ‘ছোট বাঘডাশ’ এর ছানা। এরা নিশাচর এবং বৃক্ষচারী প্রাণী। এ প্রাণীটি আমাদের পরিবেশের জন্য উপকারী। তাদের আবাসস্থল এবং প্রাকৃতিক পরিবেশ ধ্বংস হওয়ার কারণে বর্তমানে অবস্থা বিপন্ন।’’

সিলেটভিউ২৪ডটকম/১০ মে ২০১৯/আইএ/আরআই-কে

@

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   জকিগঞ্জে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত সদস্য নিহত
  •   রাতে মেয়রকে নিয়ে ঘুরলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী
  •   বাড়ীর দলিল জিম্মি করে উচ্ছেদ করতে ভাইয়ের বসতঘর ভাংচুর
  •   আসছে সিলেট সিটির ‘বিগ বাজেট’
  •   জগন্নাথপুরে সরকারি জায়গায় ঘর বানানোর প্রস্তুতি!
  •   জগন্নাথপুরে ফুটপাতের দোকান থেকে ভাড়া আদায়ের অভিযোগ
  •   চীন আরও ৭৫ বিলিয়ন ডলারের মার্কিন পণ্যে শুল্ক বসালো
  •   ভ্যানিটি ব্যাগে মিলল ২৫ বোতল ফেনসিডিল
  •   জগন্নাথপুরে জন্মষ্টমী পালন
  •   বাংলাদেশের জয়া ও সালমা এখন ফিফার রেফারি
  •   জগন্নাথপুরে সাইদুল হত্যায় মামলা, যুবকের স্বীকারোক্তি
  •   জগন্নাথপুরে ৬ দিন ধরে কিশোরী নিখোঁজ
  •   প্রেমের টানে বাংলাদেশে ঘর বাঁধলেন ইন্দোনেশিয়ান তরুণী
  •   ‌‘সংখ্যালঘু শব্দটি ভুলে যেতে হবে’
  •   কুলাউড়ায় কিশোরীকে ধর্ষ‌ণের অ‌ভি‌যোগ, গ্রেফতার ১
  • সাম্প্রতিক মৌলভীবাজার খবর

  •   কুলাউড়ায় কিশোরীকে ধর্ষ‌ণের অ‌ভি‌যোগ, গ্রেফতার ১
  •   মৌলভীবাজারে কুকুরের কামড়ে ক্ষত-বিক্ষত লজ্জাবতী বানর
  •   কমলগঞ্জে এক চা শ্রমিক মহিলার মৃত্যু
  •   হাওরপাড়ে মৌসুমি গরুর খামার,স্বাবলম্বি কৃষকরা,পাচ্ছেনা ব্যাংকিং সুবিদা
  •   বড়লেখায় গরু চুরি মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার
  •   বড়লেখায় লাইসিয়াম স্কুলে রজতজয়ন্তী উৎসবের নিবন্ধন শুরু
  •   বড়লেখায় ৪৪ পরিবারে সৌরবিদ্যুতের উপকরণ বিতরণ
  •   বড়লেখায় ভেজালবিরোধী অভিযান অব্যাহত রাখার ঘোষণা
  •   কুলাউড়ায় পারিবারিক ঝগড়ায় প্রাণ গেলো ৮ বছরের শিশুর
  •   কুলাউড়ায় চা শ্রমিকদের মেয়াদোত্তীর্ণ আটা দেওয়ার অভিযোগ
  •   কমলগঞ্জের সুনছড়া রাস্তার ব্রীজ ভেঙ্গে যানবাহন চলাচল বন্ধ
  •   জুড়ী নদীতে নৌকাবাইচ ট্রাজেডির ৩৬ বছর
  •   কুলাউড়ায় পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু
  •   কুলাউড়ায় পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু
  •   মৌলভীবাজারে ৪টি হাসপাতালে নানা অনিয়ম, জরিমানা