আজ বুধবার, ২৭ মে ২০২০ ইং

বড়লেখায় স্কুলছাত্রী অপহরণ: অপহরণকারী কারাগারে, ভিকটিম পুলিশ হেফাজতে

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৫-১৩ ২০:৫২:২৯

নিজস্ব প্রতিবেদক, বড়লেখা :: মৌলভীবাজারের বড়লেখায় স্কুলছাত্রী অপহরণের ৩১ দিন পর স্বেচ্ছায় অাত্মসমর্পণ করেছে অপহরকারী শিমুল। সে উপজেলার টুকা গ্রামের ছইয়ব আলীর ছেলে। সোমবার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আত্মসমর্পণ করলে কারাগারে ঠাঁই হয়েছে তার।

এদিকে ভিকটিম স্কুলছাত্রীকে ডাক্তারী পরীক্ষাসহ অন্যান্য আইনী কার্যক্রম সম্পন্নের জন্য পুলিশ হেফাজতে পাঠিয়েছেন বিজ্ঞ আদালত।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার টুকা গ্রামের মহেন্দ্র দাসের মেয়ে স্কুলছাত্রীকে (১৫) স্কুলে যাওয়া-আসার পথে উত্যক্ত করত গ্রামের বখাটে শিমুল আহমদ (১৯)। স্কুলছাত্রীর বাবা-মা এলাকায় শিমুলের বিরুদ্ধে বিচারপ্রার্থী হন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে সে তার সহযোগীদের নিয়ে গত ১২ এপ্রিল রাত দশটার দিকে জোরপূর্বক স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করে।

সোমবার সকালে অপহরক বখাটে শিমুল আহমদ বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে স্কুলছাত্রীটিকে নিয়ে আত্মসমর্পণ করে জামিন চায়। আদালত জামিন না-মঞ্জুর করে তাকে জেলহাজতে ও ভিকটিম স্কুলছাত্রীকে পুলিশ হেফাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

বড়লেখা থানার এসআই সুুুব্রত কুুুমার দাস জানান, আদালতের নির্দেশে ভিকটিমের ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য তাকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন।

সিলেটভিউ২৪ডটকম/১৩ মে ২০১৯/এজেএল/পিডি

@

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন