আজ বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০ ইং

শ্রীমঙ্গলে প্রাচীন মঙ্গলচন্ডী মন্দিরে চলছে আগাম দুর্গা পূজা

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-১০-১৯ ২২:৩০:৫৮

শ্রীমঙ্গল  প্রতিনিধি :: ২০০বছরের প্রাচীন মঙ্গলচন্ডী মন্দিরে চলছে ৯দিন ব্যাপী আগাম দুর্গা পূজা। ৯দিনে দেবীর ৯টি রুপের পূজা করা হবে।

এক সারিতে সাজিয়ে রাখা হয়েছে দূর্গার ৯টি রুপের ৯টি প্রতিমা। ঢাকের তালে মোহিত হচ্ছে পূজা মন্ডপ। বিশ্ব মহামারি করোনা ভাইরাস থেকে রক্ষা, নিজের ও দেশের মঙ্গল কামনায় দেবীর চরণে অঞ্জলিও দিচ্ছেন ভক্তরা।

গত শনিবার সকালে মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল উপজেলার ইছামতি চা বাগানের ভেতরে মঙ্গলচন্ডী মন্দিরে ৯দিন ব্যাপী এই নবদুর্গা পুজাটি দেবী দূর্গার শৈলপুত্রী রুপের পূজা করার মাধ্যমে শুরু হয়।

এভাবে পৌরানিক নিয়ম অনুযায়ী আগামী নবমী তিথি পর্যন্ত ব্রহ্মচারিণী, চন্দ্রঘন্টা, কুষ্মান্ডা, স্কন্ধমাতা, কাত্যায়নী, কালরাত্রী, মহাগৌরী ও সিদ্ধিদাত্রী রূপে পূজা করা হবে।

বাংলাদেশের একমাত্র আগাম দুর্গা পূজা হিসেবে পালন হয়ে আসছে। এবার তাদের দশম আয়োজন।

আগাম দূর্গা পূজা দেখতে আসা সুমিতা দে, অনিমা দত্ত বলেন, শারদীয় দুর্গা পূজা হিন্দু ধর্মালম্বীদের বড় উৎসব। সাধারনত এই পূজা টি ষষ্টি তিথিতে শুরু হয়ে দশমীতে শেষ হয়। কিন্তু এই পূজা মন্দিরে একটু ব্যতিক্রম আয়োজন এই পূজা আমরা দেখতে আসছি।

শ্রী শ্রী মঙ্গলচন্ডী সেবাশ্রম পূজা উদযাপন পরিষদের পরিমল ভৌমিক ও পুরোহিত কাজল চক্রবর্তী  জানান, এ দেবস্থলটি সর্বাধিক প্রাচীন স্থাপনা হিসেবে পরিচিত। এখানে রয়েছে মঙ্গলচন্ডী দেবীর থলি। অনেকে শ্রীমঙ্গল নামের উৎপত্তিও এই শ্রীশ্রী মঙ্গলচন্ডীর থলি থেকে হয়েছে বলে মত প্রকাশ করেন। ওই ঐতিহাসিক স্থানটিকে ধরে রাখতে এবার দশমবারের মতো পূজার আয়োজন করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, দেবী দুর্গার ৯টি রূপকে বোঝানোর জন্য মূলত নবদুর্গা বলা হয়। শরৎকালে ৯ দিনে প্রতিদিন দেবী দুর্গার এই ৯ রূপের এক একজনকে পূজা করা হয়। এর আগে ২০১১ সালে এই পূজা এখানে শুরু করেছিলাম।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / ১৯ অক্টোবর, ২০২০ / সাইফুল / ডালিম

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন