আজ রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯ ইং

নরবলি/কল্লাকাটা: মিথ না বাস্তবতা

পর্ব-১

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৭-২২ ১১:৩৩:০২

আব্দুল হাই আল-হাদী :: মোহাম্মদ আব্দুল হাই রচিত ‘সিলেটের প্রত্নসম্পদ’ বইয়ের একটি গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় হচ্ছে- ‘জৈন্তেশ্বরী বাড়ি’ । সে বাড়ির মধ্যে ‘নরবলির পাটাতন’ নামে একটি স্থাপনা আছে যেটির প্রত্নতাত্বিক বর্ণনা করতে গিয়ে লেখক প্রসঙ্গক্রমে ‘নরবলি’ প্রথা সম্পকে খানিকটা আলোকপাত করেছেন। স্যার এডওয়ার্ড গেইটের বয়ানে সেখানে নরবলি অর্থাৎ দেবতার সামনে কিভাবে মানুষকে বলি দেওয়া হত- সে সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। সেটির চুম্বক অংশ এখানে তুলে ধরা হল: ‘আশ্বিন মাসের (শুক্ল পক্ষে) সান্ধি ডে (সম্ভবত: শনিবারে) ফালজুর পরগনার পবিত্র ‘পীঠ’ ও নিজপাটের পবিত্র ‘জৈন্তেশ্বরী মন্দিরে’ বিভিন্ন উপলক্ষে নরবলি দেওয়া হতো।

কোচ বিহারের Haft Iqlim এর মতো এখানেও ভিকটিম ব্যক্তিটি স্বত:স্ফূর্তভাবে স্বেচ্ছায় এগিয়ে আসতো আত্ববলির জন্য। শ্রাবণ মাসের শেষ দিনে সাধারণভাবে আত্ববলিদানে আগ্রহীরা রাজার সামনে আসতো এবং ঘোষণা করতো যে, দেবী তাদের ডেকেছেন। তাদের নিয়ত বা সদিচ্ছার যথাযথ তদন্ত করা হতো এবং এতে যদি সে ব্যক্তি অর্থাৎ ভিকটিম বা ‘ভোগ-খাওরা’ উপযুক্ত বলে বিবেচিত হতো তবে রাজা তাকে প্রথমে সোনার নুপুর উপহার দিতেন। সে যেভাবে ইচ্ছা মনের মতো করে বসবাসের সুযোগ পেত এবং সে সন্তুষ্ট হয় এমন যেকোন কিছুই করার জন্য তাকে অনুমতি প্রদান করা হয়। জীবনে তাঁর দ্বারা সংঘটিত যেকোন ক্ষতিপুরণ রাজকীয় কোষাগার হতে প্রদান করা হত। কিন্তু এসব সুযোগ-সুবিধা ভোগের সময় হতো খুবই কম। দুর্গাপূজার নবমী দিনে গোসল ও পবিত্রতার পর ‘ভোগ-খাওরা’ কে নতুন সুন্দর পোশাক পরিধান করানো হয়। লাল চন্দন কাঠ ও সিন্দুর এবং মালা দিয়ে সজ্জিত করা হতো। এসব আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্নের পর, সে ব্যক্তি অর্থাৎ শিকার ব্যক্তিকে দেবীর সামনে একটি উচুঁ মঞ্চের উপর বসানো হতো ।এরপর সে কিছু সময় ধ্যান (জপ) এবং মন্ত্র উচ্চারণের জন্য ব্যয় করতো। সর্বশেষ সে হাতের আঙ্গুল দিয়ে একটি বিশেষ চিহ্ন তৈরি করতো এবং জল্লাদ বলির স্বাভাবিক মন্ত্র উচ্চারণের পর তার মাথা কেটে বিচ্ছিন্ন করে ফেলা হতো। এরপর মাথাকে দেবীর সামনে সোনার থালায় রাখা হতো। এরপর তার ফুসফুস রান্না করা হতো এবং উপস্থিত ‘খান্দ্র-যোগীদের’ দ্বারা খাওয়া হতো ।বলা হয় যে, রাজকীয় পরিবার মৃতের রক্ত দিয়ে রান্না করা ভাত খাওয়ার ক্ষেত্রে অংশগ্রহণ করতো। অনুষ্ঠানটি বিশাল জনতার দর্শকরা দেখতে পেত যারা রাজ্যের সব পরগণা থেকে অংশগ্রহন করতো।

কখনও কখনও স্বেচ্ছা আত্মবলিদানের লোকের অভাব দেখা দিত। কিংবা প্রতিশ্রুত বিশেষ বলি যেমন একটি পুত্র সন্তানের জন্ম ও বিপদ থেকে আসান ইত্যাদির জন্য হঠাৎ লোকের প্রয়োজন হত। সে রকম অনুষ্ঠানের জন্য, তখন ‘ছেলেধরা’ বা ‘গলাকাটরা’ নিয়োগ করা হতো যারা রাজ্যের বাইরে থেকে লোক ধরে নিয়ে আসতো।’

দেবীর উদ্দেশে মানুষকে বলি দেওয়ার এ দাবির প্রায় শতাধিক বছর পেরিয়ে গেছে। সে দাবিকে চ্যালেঞ্জ করেছেন কিংবা কেউ খারিজ করতে পেরেছেন বলে জানা নেই। মানুষকে বলি দেওয়ার পাটাতনটি আজও কালের সাক্ষী হিসেবে টিকে আছে। তবে কী নরবলি মিথ, না এক কঠিন বাস্তবতা??

লেখক : প্রধান নির্বাহী, সেভ দ্য হেরিটেজ এন্ড এনভায়রনমেন্ট।

@

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   শাড়ি কিনলে পিয়াজ ফ্রি!
  •   উত্তাল ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চল, যুক্তরাষ্ট্রসহ ৪ দেশের ভ্রমণ সতর্কতা
  •   বহিরাগতদের উৎপাতে অতিষ্ঠ ফেঞ্চুগঞ্জ কলেজের শিক্ষার্থীরা
  •   জ্যামাইকার টনির মাথায় মিস ওয়ার্ল্ডের মুকুট
  •   রাজাকার, আলবদর ও আলশামস বাহিনীর তালিকা প্রকাশ বেলা ১১টায়
  •   নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে উত্তাল পশ্চিমবঙ্গ, ৫ ট্রেন ১৫ বাসে আগুন
  •   আজ বালাগঞ্জের ফিরোজা-বাগ মাদরাসার ৪৫তম বার্ষিক ওয়াজ মাহফিল
  •   বালাগঞ্জে নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন
  •   শহীদ বুদ্ধিজীবীরা আমাদের চেতনার বাতিঘর: এমপি মানিক
  •   দিরাইয়ে শ্রমিক নেতা দিলীপ বর্মনের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন
  •   শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে হবিগঞ্জে আলোক প্রজ্জলন
  •   ফেঞ্চুগঞ্জে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় সাংবাদিক কিনেল আহত
  •   সিলেটে রাতের আঁধারে স্মৃতিসৌধের ফুল চুরি
  •   জিন্দাবাজারের ‘রাস্তার রাজা’ হকাররা
  •   ‘সিলেটে অটোরিক্সা শ্রমিকদের শতভাগ বৈধ ড্রাইভিং লাইসেন্স থাকবে’
  • সাম্প্রতিক মুক্তমত খবর

  •   চলে যাওয়া মানে সব শেষ নয়...|| মান্না চৌধুরী
  •   মন্ত্রী ইমরান সাহেবের অতি কথন
  •   কলিকালের ‘বড়গাঙ’
  •   মি. মান্নান, আমরা বড়ই কনফিউজড
  •   নিরহংকার এক রাজনীতিবীদ আজাদুর রহমান আজাদ
  •   বাংলা সাহিত্য ও আমাদের রবীন্দ্রনাথ
  •   সাংবাদিক মনসুর ও কিছু স্মৃতিকথা
  •   পিয়াজের দাম কত হলে মন্ত্রীর পদত্যাগ চাওয়া যায়?
  •   শিক্ষার প্রকারভেদে শিক্ষার্থী, পরিবার ও শিক্ষকের দায়িত্ববোধ
  •   রাঙ্গার নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়া উচিত
  •   মেয়েরাও যৌতুক নেয়!
  •   একজন রেনু এবং তার ৪৬ বছরের রাজনৈতিক বর্নাঢ্য ক্যারিয়ার
  •   মাস্টার ও শিক্ষক শব্দের ব্যবচ্ছেদ
  •   কৃষির অগ্রযাত্রার সারথী সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়
  •   স্মৃতিতে ধীরেশ স্যার