আজ বুধবার, ২০ মার্চ ২০১৯ ইং

লন্ডনে কোটি ডলার খরচ করে ফেঁসেছেন সাজাপ্রাপ্ত ব্যাংকারের স্ত্রী

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৮-১০-১২ ০০:৫৩:৩৬

জামিরা হাজিয়েভার স্বামী জাহাঙ্গীর হাজিয়েভ ইন্টারন্যাশনাল ব্যাংক অফ আজারবাইজানের কর্মকর্তা ছিলেন। ২০১৬ সালে রাষ্ট্রীয় ওই ব্যাংকের অর্থ  জালিয়াতির দায়ে তার ১৫ বছরের জেল হয়েছিলো। এবার তার স্ত্রী জামিরা হাজিয়েভার বিরুদ্ধেও শুরু হয়েছে তদন্ত। কারণ গত এক দশকে লন্ডনের বিখ্যাত বিলাসবহুল দোকান হ্যারডসে দুই কোটি দশ লাখ ডলারের কেনাকাটা করেছেন জামিরা। এমনকি তিনি ওই দোকান ও বার্কশায়ারের একটি গলফ ক্লাবও কিনে নিয়েছিলেন।

যুক্তরাজ্যে দুর্নীতি বিরোধী নতুন একটি আইনের কারণে বিপদে পড়েছেন ৫৫ বছরে জামিরা। তার এতো অর্থ কিভাবে হলো সেটি ব্যাখ্যা করতে না পারলে সম্পদ হারানোর ঝুঁকিতে পড়তে পারেন তিনি। এখন তিনি লড়াই করছেন লন্ডনে তার দেড় কোটি ডলারের বাড়ি রক্ষার জন্য। এর মধ্যেই তার নাম গোপন থাকবে কি-না সে বিষয়ে লড়াইয়ে তিনি হেরে গেছেন। একই সাথে তাকে প্রায় চার কোটি ডলার ফেরত দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছিলো। সাত বছর আগে ব্রিটিশ ভার্জিন আইল্যান্ডের একটি কোম্পানিকে এ দম্পতির পক্ষ থেকে একটি বড় বাড়ির জন্য দেড় কোটি ডলার পরিশোধ করা হয়েছিলো। আর ২০১৩ সালে বার্কশায়ারের গলফ ক্লাব কেনার জন্য মিসেস হাজিয়েভার কোম্পানি থেকে এক কোটি ডলার দেয়া হয়েছিলো। সম্পদশালী বিনিয়োগকারী হিসেবেই এ দম্পতিকে বসবাসের অনুমতি দিয়েছিলো ব্রিটিশ হোম অফিস।

মূলত গত জুলাইয়ে আদালতে শুনানির সময় হাজিয়েভার অর্থ সম্পর্কে নানা তথ্য বেরিয়ে পড়ে। গত দশ বছরে তিনি শুধু হ্যারডসেই ব্যয় করেছেন দু কোটি ডলারেরও বেশি। এজন্য তাকে দৈনিক প্রায় পাঁচ হাজার ডলার ব্যয় করতে হয়েছে। এর বাইরে বিলাসবহুল গহনার দোকানে ব্যয় করেছেন এক লাখ ১০ হাজার ডলার। তার প্রায় ৩৫টি ক্রেডিট কার্ড রয়েছে, যার সবগুলোই তার স্বামীর ব্যাংক থেকে করা।

সরকারি তথ্য থেকে জানা যায় যে হাজিয়েভা প্রায় সাড়ে চার কোটি ডলার দিয়ে একটি জেট আর হ্যারডসের নিজস্ব পার্কিং থেকে দুটি পার্কিং এরিয়াও কিনে নিয়েছেন। স্বামী ও নিজেকে নির্দোষ দাবি করেছেন হাজিয়েভা, বলেছেন তারা বড় অন্যায়ের শিকার। তিনি আদালতে বলেছেন, তার স্বামী একজন ব্যবসায়ী এবং ব্যাংকের চেয়ারম্যান হওয়ার আগেই ব্যবসা করে সম্পদশালী হয়েছেন তিনি।

যদিও ন্যাশনাল ক্রাইম এজেন্সি আদালতে জানিয়েছে হাজিয়েভ ১৯৯৩ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত রাষ্ট্রের একজন কর্মকর্তা ছিল। সূত্র: বিবিসি বাংলা

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   সুষম সাংস্কৃতিক অঙ্গন গড়ে তুলতে সরকার কাজ করছে: পরিকল্পনামন্ত্রী
  •   যেসব কারণে বাতিল হচ্ছে তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত পরীক্ষা
  •   দুবাইয়ে চলছে দক্ষিণ এশীয় শিল্প প্রদর্শনী: নেতৃত্বে সিলেটি দম্পতি
  •   গাঁজা ছাড়া গাড়ি চালাতে পারে না সিরাজুল
  •   অধিকাংশ দুর্ঘটনার কারণ বাস: বুয়েটের গবেষণা
  •   কাজাখাস্তানের প্রেসিডেন্টের পদত্যাগের ঘোষণা
  •   গুগলকে ১৪ হাজার কোটি টাকা জরিমানা
  •   'দেশে যে নৈরাজ্য চলছে তার প্রতিক্রিয়ায় নিরাপদ সড়ক আন্দোলন'
  •   উমরপুর ইউনিয়নের ৩টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষা সামগ্রী বিতরণ
  •   একই বিমানের পাইলট মা ও মেয়ে, ছবি ভাইরাল
  •   নির্বাচন নিয়ে ট্রাম্পের উদ্বেগে আমরা চিন্তিত নই: ইসি রফিকুল
  •   দক্ষিণ সুনামগঞ্জে ইউনিয়ন পরিষদ সমুহের ষান্মাসিক পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত
  •   ভয়ানক বউ প্রিয়াঙ্কা
  •   ‘গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধি নয়, কমাতে হবে’
  •   রাজনগরে শাহজাহান খানের জয়ের নেপথ্যে...
  • সাম্প্রতিক যুক্তরাষ্ট্র খবর

  •   নিউইয়ক আওয়ামী লীগের অনুষ্ঠান
  •   ৭ই মার্চ স্মরণে অল ইউরোপীয়ান আওয়ামী সোসাইটির সভা
  •   যে শহরের 'মেয়র' একটি ছাগল!
  •   মিশিগান স্টেটে কনসুলার সার্ভিসের উদ্ভোধন
  •   বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিকে সিলেট মুক্তিযোদ্ধা যুক কমান্ডের শ্রদ্ধা
  •   যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামীলীগের দোয়া মাহফিল
  •   ওবায়দুল কাদেরের সুস্থতা কামনায় মিশিগান আ.লীগের দোয়া মাহফিল
  •   নিউইয়র্কে প্রবাসীদের বিজয় সমাবেশ : সংসদে প্রবাসীদের আসন সংরক্ষণের দাবি
  •   ‘ভাষা আন্দোলনের মাধ্যমেই বাংলাদেশ নামের উৎপত্তি’
  •   মিশিগানে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন
  •   যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগানে যুক্তরাজ্যে ওল্ডহ্যাম যুবলীগের সভাপতি সাদেককে সংবর্ধনা
  •   মিশিগান স্টেট ছাত্রলীগের প্রতিস্টাতা যুগ্ম আহবায়ক মামুনকে সংবর্ধনা
  •   যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশি-আমেরিকান সিনেটর শেখ রহমানকে সংবর্ধনা
  •   নিউজার্সিতে ড্রিউ ও ফারুক সংবর্ধিত
  •   নিউইয়র্কে সৈয়দ আশরাফ স্মরণে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবারের দোয়া