আজ বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০ ইং

ইতালির মিলানে সোনার বাংলা গ্রুপের ক্রিকেট টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-১০-১৪ ১০:৫১:৪১

জুবায়ের আহমেদ ইতালি থেকে :: মিলানের লাম্পুনিয়ানো মাঠে   সোনার বাংলা গ্রুপের টি ১০ ক্রিকেট  প্রথম বারের মতো খেলা অনুষ্ঠিত জুবায়ের আহমেদ শিশু,  ইতালি থেকে : ১২ সেপ্টেম্বর  রবিবার তিলোত্তমা নগরী মিলানের লাম্পুনিয়ানো মাঠে “ সোনার বাংলা গ্রুপের আয়োজনে খেলাটি অনুষ্ঠিত হয়।

মহামারী করোনার প্রাদূর্ভাবে দেশটির আইনানুযায়ী প্রায় সাত মাস খোলা মাঠে সকল খেলাধুলা বন্ধ থাকার পর ধীরে ধীরে পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হলে আবারো ক্রিকেট খেলার আনন্দে মেতে ওঠে দেশটিতে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশী তরুণরা।

নতুন উদ্দোমে চোখে স্বপ্ন নিয়ে  সমাপনী খেলার অঙ্গিকারে রবিবার মিলানের মাঠে নামে একঝাঁক তরুণ ক্রিকেটপ্রেমী। এতে সর্বমোট ১৪ দল অংশ নেয়।

খেলায় প্রতি দলে মোট ৯ জন  করে খেলোয়াড় নির্বাচন করা হয় এবং প্রতি দল ১০  ওভার করে খেলার সুযোগ পায়। দিনব্যপী খেলা চলতে থাকে। এতে সব দলকে হারিয়ে ফাইনাল ম্যাচে খেলার সুযোগ পায় ‘ভিয়া পাদোভা অল স্টার বনাম  সোনার বাংলা গ্রুপ,  এ সময় ফাইনাল ম্যাচে টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নামে,  সোনার বাংলা গ্রুপে,। এতে ১০  ওভারে ১৩৫  রান সংগ্রহ করে মাঠ ছাড়ে দলটি। পরে ১৩৬  রানের টার্গেট নিয়ে মাঠে নামে মাদারীপুরের দল “ভিয়া পাদোভা অল স্টার টিম”।

ব্যাটিং’র দারুণ নৈপুণ্যে এক ওভার হাতে রেখেই জয় লাভ করে সোনার বাংলা গ্রুপ,। চারিদিকে সবুজ গাছগাছালি আর খোলা আকাশের নীচে আনন্দে আত্মহারা হয়ে উঠে বিজয়ের আনন্দে।
দীর্ঘদিনের বন্দীদশা থেকে যেন মুক্তি পেলো এরা।

পরন্ত বিকালে আলো-আঁধারির মাঝে এক ধরনের পরিবেশ বিরাজ করে আর এরই মাঝে জড়ো হতে থাকে মাঠের সকল খেলোয়ার,দর্শক এবং কমিউনিটি’র বিশিষ্ট জনেরা।

শুরু হয় পুরষ্কার বিতরণের পালা।এতে সভাপতিত্ব করেন, তরুণ সংগঠক সবার প্রিয়  জুুবায়ের আহমেদ শিশু এবং অনুষ্ঠানের পরিচালনা করেন বিল্লাল হুসেন প্রধান আয়োজক রাজু আহমদ,  অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, নুর মোহাম্মদ মালেক, হাসিবুল আলম সেলিম, সারওয়ার হোসাইন, জাকির হোসেন, তপু খান, মামুন হাওলাদার, মামুন খান, আব্দুল বাসিত দল, আবুল হাকিম, এনামুল হক সরকার,রাজু আহমেদ  নুরুল আফছার বাবুল,ফয়ছল খান,শুভ্র ফকির রুহুল আমিন রাহুল,জমির হোসেন  ,মিজান আহমদ, যুব হোসাইন, নজরুল, সবুজ,প্রমুখ,

অতিথিরা বক্তব্য বলেন, প্রবাসের মাটিতে শত কর্মব্যস্ততার মাঝে এ ধরনের সত্যিই কঠিন কাজ তারপরও বাংলাদেশী এই তরুণেরা দেখিয়ে দিয়েছে বাঙালীরা ইচ্ছে করলে সব কিছুই পারে। শরীর এবং মনকে সূস্হ রাখতে হলে খেলাধুলা জরুরী।আয়োজকদেরকে শুভেচ্ছা ও ধন্যবাদ জানান এই উদ্যেগ গ্রহন করার জন্য। এবং ভবিষ্যতেও যেন এই ধারা অব্যাহত থাকে সে প্রত্যয় ব্যক্ত করেন ,তিনি খেলোয়ারদের উদ্দেশ্যে বলেন,”খেলায় অংশ গ্রহন করাটাই বড় কথা,বিজয়ী হওয়া নয়”। অতিথিদের বক্তব্যের শেষে প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন দলের অধিনায়ক এবং আয়োজকবৃন্দ।