আজ সোমবার, ১৫ অক্টোবর ২০১৮ ইং

ভারতেই আত্মগোপনে 'লাদেন'!

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৮-০৬-১১ ০০:৫০:২২

ভারতের আসামের বিস্তীর্ণ এলাকায় গত দু'বছর ধরে ত্রাস সৃষ্টি করেছে লাদেন। ২০১৬ সাল থেকে এখনও পর্যন্ত তার হামলায় শিকার হয়েছে অন্তত ৩৭ জন। তবে এই লাদেন কিন্তু আল কায়দা প্রধান ওসামা বিন লাদেন নয়। গোয়ালপাড়ার ফরেস্ট ডিভিশনের একটি দাঁতালের নাম লাদেন। তারই অত্যাচারে অতিষ্ঠ এলাকার বাসিন্দারা।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, লাদেন জুন মাসের এক তারিখ শেষ হামলাটি করে পাটপাড়া পাহাড়তোলি গ্রামে। সেখানে মনোজ হাজং নামে এক ব্যক্তি তুলে আছাড় দিয়ে মেরে ফেলে লাদেন। তার পরেই আতঙ্ক ছড়ায় এলাকায়।

এ ব্যাপারে ওই এলাকার এক বন কর্মকর্তা জানান, ২০১৬ সাল থেকে এখন পর্যন্ত ৩৭ জনকে লাদেন মেরে ফেলেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। মেঘালয়ের গারো পাহাড় থেকে নেমে এসে গোয়ালপাড়া ফরেস্ট ডিভিশনের মধ্যে কোনো এক জায়গায় আত্মগোপন করে রয়েছে লাদেন।

গোয়ালপাড়ার ডিভিশনাল ফরেস্ট অফিসার এ গোস্বামী জানান, লাদেন বেশির ভাগ হামলা বিকেল বেলা কিংবা রাতের বেলাই করে থাকে। তিনি আরও জানান, ওই এলাকায় এমনিতেই অনেক হাতির দল রয়েছে। তবে সমস্যা অন্য জায়গাতে। এলাকার গ্রামবাসীরা চায় হাতির দলগুলোকে অাসমের দিতে পাঠিয়ে দিতে। তাই জন্য ড্রাম বাজিয়ে, চিৎকার দিয়ে হাতির দলগুলোকে তাড়িয়ে অাসমের দিকে পাঠানোর চেষ্টা করেন গ্রামবাসীরা। কিন্তু এতেই হিতে বিপরীত হয়ে যায়। মাঝে মধ্যে এতে অতিষ্ঠ হয়ে হাতিও পালটা হামলা করে থাকে।

ইতিমধ্যে লাদেনের গতিবিধি উপর নজর রাখার চেষ্টা চলছে বলে জানা গেছে। সাধারণত কোনো হামলার ১০-১৫ দিন পর কোনো খোঁজ পাওয়া যায় না লাদেনের। এ গোস্বামী জানান, হামলাগুলো সাধারণত মাসের শেষের দিকেই হয়ে থাকে।

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   শাবি প্রেসক্লাবের সাথে ডিইউডিএস ও এসইউডিএস এর মতবিনিময়
  •   শাবিতে ন্যাশনাল ডিবেট ক্যাম্পেইনে চ্যাম্পিয়ন পার্কভিউ
  •   ছাতক-দোয়ারার ২২ ইউনিয়নে এমপি মানিকের পৃথক মতবিনিময় সভা
  •   কুলাউড়ায় ভোক্তা অধিকার আইনে ৪টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা
  •   জকিগঞ্জে ইয়াবাসহ নারী আটক
  •   জকিগঞ্জে দপ্তরী নিয়োগ বাতিলের দাবিতে মানববন্ধনে পুলিশের বাঁধা
  •   সিলেটভিউ পরিবারের সাথে ড. মোমেনের সৌজন্য সাক্ষাৎ
  •   ফেঞ্চুগঞ্জে ইভটিজিংয়ের জেরে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষের আশংকা
  •   বেকারত্ব দূরীকরণে কারিগরি শিক্ষার বিকল্প নেই: হুইপ শাহাব উদ্দিন
  •   লিডিং ইউনিভার্সিটিতে ‘কোয়ালিটি এ্যাসিউরেন্স এন্ড এ্যাক্রিডিটেশন’ বিষয়ক কর্মশালা
  •   ৩০ অক্টোবরের পর যেকোনো দিন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা
  •   ‘সবুজ-শ্যামল পৃথিবী গড়তে বেশী করে গাছ রোপণ করুন’
  •   শেখ হাসিনার দক্ষ নেতৃত্বে শিক্ষার মান ঊর্ধ্বমুখী: এমপি সামাদ
  •   মদিনা মার্কেটে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের নিয়ে আলোর ভুবনের দুর্গোৎসব
  •   মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের মাঝে লায়ন্স ক্লাব অব সিলেট সুরমার ফল বিতরণ
  • সাম্প্রতিক আন্তর্জাতিক খবর

  •   ক্লিনটনের যৌন কেচ্ছা নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য হিলারির
  •   সামরিক ক্ষেত্রে কতো শক্তিশালী রাশিয়া! জেনে নিন
  •   দুর্ব্যবহারের ক্ষোভে বিচারকের স্ত্রী-পুত্রকে প্রকাশ্যে গুলি দেহরক্ষীর!
  •   পেট্রোল চুরি করতে গিয়ে প্রাণ গেল ৩০ চোরের
  •   খাশোগি হত্যার রহস্য উদঘাটনে সহায়তা করবে অ্যাপল ওয়াচ!
  •   ব্রিটিশ রাজপরিবারে আবারও বিয়ের আয়োজন
  •   ‘মাইকেলে’ লণ্ডভণ্ড ফ্লোরিডা, নিহত ৬
  •   'খাশোগিকে টুকরো টুকরো করা হয়, সময় লাগে ২ ঘণ্টা'
  •   আত্মহত্যা ঠেকাতে মন্ত্রী নিয়োগ!
  •   ইভাঙ্কাকে 'ডিনামাইট’ বললেন ট্রাম্প
  •   সাইক্লোন 'তিতলি': প্রাণ গেলো দুজনের, ঘরছাড়া ৩ লাখ মানুষ
  •   ওড়িশায় তিতলির তাণ্ডব
  •   যুক্তরাজ্যে শারীরিক স্পর্শের শিকার হন ৬৬ ভাগ ছাত্রী
  •   জাতিসংঘে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূতের পদত্যাগ
  •   মন্ত্রী হতে চাইলে অনলাইনে আবেদনের আহ্বান ইরাকে