আজ মঙ্গলবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৮ ইং

‘কোনোভাবেই তারেক রহমানকে ফেরত পাবে না’

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৮-১০-১১ ২০:০৫:৫৭

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে দেশে ফেরত আনার জন্য ইন্টারপোলের মাধ্যমে রেড নোটিশ জারি করার যে আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় সে বিষয়ে বর্তমান অবস্থান তুলে ধরেছেন দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ।

বিবিসি বাংলাকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, তারেক রহমান সফলভাবে প্রমাণ করতে পেরেছেন যে, বাংলাদেশে ফেরত গেলে তার ওপর জুলুম হবে। ব্রিটিশ সরকারকে তিনি বোঝাতে সক্ষম হয়েছেন বলেই তাকে আশ্রয় এবং স্থায়ীভাবে বসবাসের অনুমতি দেয়া হয়েছে।

এর আগে বুধবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে সজীব ওয়াজেদ জয় তার ভেরিফায়েড পেজে দেয়া এক স্ট্যাটাসে বলেন, আমাদের সরকারের উচিত এখনই তারেক রহমানের নামে আবার নতুন করে ইন্টারপোলের রেড নোটিশ জারি করা, এবার খুন ও সন্ত্রাসবাদের জন্য। তাকে ফেরত দিতে যুক্তরাজ্যকে অনুরোধ করাও উচিত আমাদের।

অন্যদিকে মামলায় রায়ের পর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছিলেন, এই মামলার যেসব আসামি বিদেশে রয়েছে তাদের ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে উদ্যোগ নেয়া হবে।

আর আইনমন্ত্রী আনিসুল হক মনে করেন, তারেক রহমানকে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে কোনো প্রতিবন্ধকতা নেই।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ ও ব্রিটেনের মধ্যে বন্দিসমর্পণ চুক্তি না থাকলেও জাতিসংঘের মিউচুয়াল লিগ্যাল অ্যসিসট্যান্স (এমল্যাট) সনদের আওতায় তারেক রহমানকে বিচারের জন্য হস্তান্তর করা যেতে পারে। দুটি দেশের মধ্যে আইনগত এবং বিচারিক সহযোগিতার ভিত্তি এই সনদ।

এসব বক্তব্যের বিষয়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনার কথাকে রাজনৈতিক বাগাড়ম্বর। আওয়ামী লীগ যত দিন সম্ভব একে রাজনৈতিক স্বার্থে ব্যবহার করতে চায়।

তিনি বলেন, তারা গত ১০ বছর ধরেই তো বলছে তাকে ফেরত আনবে। কিন্তু পেরেছে কী? আর না পারলে, তারা কি বলতে পারছে, কেন তারা পারছে না?

মওদুদ আহমদ বলেন, সাত বছর, ১০ বছর কিংবা যাবজ্জীবন সাজা - যাই হোক না কেন তারেক রহমান যে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার, এটা তো সবারই জানা। এক্সট্রাডিশন ট্রিটি বা এমল্যাট -যাই হোক না কেন ২০০৩ সালের এক্সট্রাডিশন আইন এবং ২০০২ সালের কমনওয়েলথ দেশগুলোর এক্সট্রাডিশন সংক্রান্ত আইনগুলোর আওতার মধ্যে থেকে ব্রিটিশ সরকারকে তারেক রহমানকে ফেরত নেয়ার আবেদন বিবেচনা করতে হবে।

তিনি বলেন, যদি বাংলাদেশ সরকার ব্রিটিশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ফেরত চেয়ে কোনো আবেদন পাঠায় তাহলে ব্রিটিশ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে এসব আইনের আলোকে করণীয় সম্পর্কে সিদ্ধান্ত নিতে হবে। এটি একটি দীর্ঘ প্রক্রিয়া। আইনের বর্তমান কাঠামোর অধীনে বাংলাদেশ কোনোভাবেই তাকে ফেরত পাবে না।

সূত্র: বিবিসি বাংলা

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   সিলেটে দিঘীতে ‘ভাসমান রেস্টুরেন্ট’: শিগগিরই কাজ শুরু
  •   বিকেলে সৌদির উদ্দেশে ঢাকা ছাড়বেন প্রধানমন্ত্রী
  •   অভিযানের শুরুতেই জঙ্গি আস্তানায় বিস্ফোরণ
  •   প্যারিসে অধ্যক্ষ আব্দুল মুকিত স্মরণে শোক সভা
  •   তামাবিল সীমান্ত দিয়ে ভারতীয়কে ফেরত পাঠালো পুলিশ
  •   ট্রাক উল্টে প্রাণ গেল একই পরিবারের তিনজনের
  •   ‘ঘিরে রাখা দুই বাড়িতে জঙ্গি ও গোলাবারুদ রয়েছে’
  •   আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে সম্পাদক পরিষদের মানববন্ধন
  •   ঢাকায় জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দল: সিলেটে খেলবে টেস্ট ম্যাচ
  •   জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে দু’টি বাড়িতে অভিযান
  •   একসাথে চার সন্তান প্রসব
  •   ছেলের জন্য ঠিক করা মেয়েকে বিয়ে করলেন বাবা!
  •   প্রেমিকের কবরে কনের সাজে প্রেমিকা
  •   ক্লিনটনের যৌন কেচ্ছা নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য হিলারির
  •   ফেসবুক প্রোফাইল গোপন রাখবেন যেভাবে
  • সাম্প্রতিক রাজনীতি খবর

  •   যে কারণে সভা বর্জন করেছেন মাহবুব তালুকদার
  •   মানুষ এখন ডিজিটাল আতঙ্কে: রিজভী
  •   খালেদার জামিন ২৩ অক্টোবর পর্যন্ত বাড়ল
  •   'থলের বিড়াল বের হয়ে আসছে'
  •   আইসিইউতে বিএনপি নেতা তরিকুল
  •   ড. কামালের বাসার দরজা থেকে ফিরে গেলেন বি. চৌধুরী
  •   ২১ আগস্ট মামলার রায়কে ঘিরে বদলে যাচ্ছে জাতীয় ঐক্যের সমীকরণ
  •   যে ৭ দফা ও ১১ লক্ষ্য ঘোষণা করলো জাতীয় ঐক্য ফ্রন্ট
  •   ‘তারেকের সঙ্গে জাতীয় ঐক্যের কোনো সম্পর্ক নাই’
  •   ড. কামালের নেতৃত্বে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট’র আত্মপ্রকাশ
  •   দুর্যোগের জন্য আগে থেকেই প্রস্তুত থাকতে হবে : ত্রাণমন্ত্রী
  •   'গ্রেনেড হামলার দায় বিএনপির হলে পিলখানা হত্যাকাণ্ডের দায় আওয়ামী লীগের'
  •   তারেক রহমানের পদত্যাগের প্রশ্নই আসে না: ফখরুল
  •   ফখরুলের কাছে অনেক প্রশ্ন কাদেরের
  •   ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত খালেদা জিয়ার জামিন