আজ বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯ ইং

মেয়রের আশ্বাসে বিশ্বাস নেই

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৯-০৩-২০ ১৩:৪৮:০০


পরিবহনের বাস চাপায় বিইউপি শিক্ষার্থী আবরার আহাম্মেদ চৌধুরী নিহতের ঘটনায় দ্বিতীয় দিনের মতো রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার গেটে সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করছেন শিক্ষার্থীরা। ফলেও আজও এই সড়কে যানচলাচল বন্ধ আছে।

আন্দোলরত শিক্ষার্থীদের বোঝাতে বুধবার দুপুরে ঘটনাস্থলে যান ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। সেখানে নিহত শিক্ষার্থী আবরার আহাম্মেদ চৌধুরী স্মরণে তার নামে ফুটওভার ব্রিজের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করেন তিনি। সে সময় সঙ্গে ছিলেন ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া, বিইউপি ভিসি জেনারেল বারি।

ফুটওভার ব্রিজের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপনের পরে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে মেয়র বলেন, তোমাদের দাবিগুলোর একটি বাস্তবায়নের জন্য ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করা হলো। দ্রুততম সময়ের মধ্যে এটা বাস্তবায়ন করা হবে।

তিনি বলেন, তোমাদের সব যৌক্তিক দাবি মেনে নেয়া হবে। বাস স্টপেজ ছাড়া কোনো বাস থামবে না, তোমাদের সমন্বয়ে আমরা প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধি নিয়ে নিয়মিত বসে সড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে করণীয় এবং আপডেট সম্পর্কে জানানো হবে। তোমাদের মতো নতুন প্রজন্মকে নিয়ে আমরা সমস্ত সমস্যা মোকাবেলা করে সড়কে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনবো।

কিন্তু আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা এক সঙ্গে বলে ওঠেন,দাবি বাস্তবায়ন না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাবো। কোনো আশ্বাস আমরা আর শুনতে চাই না। আমাদের দাবি বাস্তবায়ন হয়েছে এমন দেখতে চাই। যখন আমাদের দাবি পূরণ হবে তখন আমরা আন্দোলন ছেড়ে শ্রেণিকক্ষে ফিরে যাবো।

এসময় শিক্ষার্থী ‘বিচার চাই’, ‘উই ওয়ান্ট জাস্টিস’, ‘আমাদের দাবি মানতে হবে’ স্লোগান দিতে থাকে।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার (১৯ মার্চ) সকাল ৭টার দিকে প্রগতি সরণিতে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার গেটের সামনে বাসচাপায় নিহত হন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থী আবরার আহাম্মেদ চৌধুরী। এরপরই রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ জানায় শিক্ষার্থীা। গতকাল দিনভর বসুন্ধরা গেটের সামনে অবস্থান করে বিকেলের দিকে কর্মসূচি স্থগিত করা হয়। এরপর আজ সকাল থেকে তারা দ্বিতীয় দিনের মতো বিক্ষোভ করছেন। পুরান ঢাকা, ধানমন্ডি, উত্তরাতেও শিক্ষার্থীরা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছেন বলে খবর রয়েছে।

সিলেটভিউ ২৪ডটকম/২০ মার্চ ২০১৯/মিআচ

সৌজন্যে: জাগো নিউজ ২৪

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে জাতিসংঘ মহাসচিবের আশ্বাস
  •   পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী আব্বাসি গ্রেফতার
  •   মিন্নির রিমান্ড বাতিল আবেদনে সাড়া দেননি হাইকোর্ট
  •   মিন্নি চেয়েছিলেন রিফাতকে শিক্ষা দিতে: বরগুনার এসপি
  •   আরও একটি সুপার ওভার হলে সুবিচার হতো : শচীন
  •   'সকল সরকারি সেবামূলক অফিস দালালমুক্ত করা হবে'
  •   বিশ্বকাপের সেরা মুহূর্তের তালিকায় রয়েছেন সাকিব
  •   মাটি খুঁড়ে অনন্ত জলিলের চুরি হওয়া ২০ লাখ টাকা উদ্ধার
  •   এমসি কলেজে ছাত্রলীগের দু’পক্ষে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া
  •   নবীগঞ্জে প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রীর ত্রাণ বিতরণ
  •   আমিরাতে দ্বিতীয় বাংলাদেশি হিসেবে গোল্ড কার্ড পেলেন মানিক
  •   রাস্তা সম্প্রসারনে জায়গা ছাড়লেন শফিক চৌধুরী
  •   কলা গাছে বেঁধে ভারত থেকে বাংলাদেশে গরু পাচার
  •   যুবলীগ নেতা রুকন’র মায়ের ইন্তেকাল, বিভিন্ন মহলের শোক
  •   পানি কমছে ফেঞ্চুগঞ্জ কুশিয়ারায়
  • সাম্প্রতিক জাতীয় খবর

  •   রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে জাতিসংঘ মহাসচিবের আশ্বাস
  •   মিন্নির রিমান্ড বাতিল আবেদনে সাড়া দেননি হাইকোর্ট
  •   মিন্নি চেয়েছিলেন রিফাতকে শিক্ষা দিতে: বরগুনার এসপি
  •   'সকল সরকারি সেবামূলক অফিস দালালমুক্ত করা হবে'
  •   কলা গাছে বেঁধে ভারত থেকে বাংলাদেশে গরু পাচার
  •   রিফাত শরীফ হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করলেন মিন্নি
  •   রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে জাতিসংঘ মহাসচিবের উদ্বেগ প্রকাশ
  •   রিফাত হত্যা মামলার ৩ নম্বর আসামি রিশান ফরাজী গ্রেফতার
  •   ওআইসিতে ইসরাইলের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের নিন্দা
  •   জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
  •   হজে এবার ৮০০ কোটির ওপরে আয় করবে বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স
  •   আমি এই হত্যাকাণ্ডে জড়িত নই: আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নি
  •   নুসরাত জাহান রাফি আলিম পরীক্ষায় দুই বিষয়ে ‘এ’ গ্রেড পেয়েছে
  •   সশস্ত্র বাহিনীকে আরও আধুনিক করে গড়ে তোলা হবে: প্রধানমন্ত্রী
  •   ডেঙ্গু নিয়ে দুই মেয়রের বক্তব্যে হাইকোর্টের বিস্ময়