আজ বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০ ইং

‘ঝুঁকিপূর্ণ’ কিন ব্রিজ দিয়ে অবাধে চলছে যানবাহন!

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-০৮-১২ ১৪:২৯:৫৬

ছবি : মো. মোজাম্মেল হক

নিজস্ব প্রতিবেদক :: সিলেট নগরীর ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ কিন ব্রিজ দিয়ে আবারও অবাধে চলতে শুরু করেছে সব ধরণের যানবাহন। সংস্কার কাজের দোহাই দিয়ে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী এক বছর আগে ব্রিজটির দু’পাশে গ্রিল দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দিলেও গত কয়েক দিন থেকে অবাধে চলছে সিএনজি অটোরিকশসহ প্রায় সব ধরণের যানবাহন।

সিলেট নগরের ঐতিহাসিক কিন ব্রিজ সংস্কারের জন্য সিটি কর্পোরেশন, সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগ এবং পুলিশ (ট্রাফিক বিভাগ)-এর  যৌথ সিদ্ধান্তে  গত বছরের ১ সেপ্টেম্বর এই সেতু দিয়ে সব ধরনের যান চলাচল বন্ধ করা দেয়া হয়। শুধু পথচারীরা হেঁটে পারাপারের সুযোগ রেখে ব্রিজের দু’ধারে (দক্ষিণ ও উত্তর পাশে) লোহার গ্রিল বসিয়ে দেন মেয়র আরিফ। যাতে কোনো ধরণের যানবাহন যাতে চলাচল করতে না পারে।

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের (সিসিক) মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ওই সময় বলেন, দীর্ঘদিন ধরেই সেতুটি বেশ ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। সে কারণে সংস্কারের জন্য এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, প্রায় শতবর্ষী এই সেতু দিয়ে প্রতিদিন সুরমা নদী পার হয় অসংখ্য যানবাহন। ফলে সেতুর বিভিন্ন স্থানে গর্ত হওয়ায় যান চলাচল অনেকটাই ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। এ অবস্থায় ঐতিহাসিক এই স্থপনাটি সংস্কারের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

তবে এভাবে কিন বিজ্র বন্ধ করে দেয়ায় সে সময় ফুঁসে উঠেন সুরমার দক্ষিণপারের মানুষ। তাদের আন্দোলনের মুখে এক মাস ২২ দিন বন্ধ রাখার পর গ্রিলের কয়েকটি রড কেটে মোটরসাইকেল ও রিকশা চলাচলের সুযোগ করে দেয়া হয়, বন্ধ রাখা হয় অন্য সব যানবাহন।

কিন্তু গত ঈদুল আযহার (১ আগস্ট) থেকে ঝুঁকিপূর্ণ সেই কিন ব্রিজ দিয়ে আবারও চলতে শুরু করেছে সিএনজি অটোরিকশসহ প্রায় সব ধরণের যানবাহন। রিকশার দু’পাশের চাকার মধ্যখানের লোহার রডের ধাক্কায় গ্রিল ভেঙে যাওয়া এবং পরবর্তীতে সেগুলো মেরামত না করার কারণে বর্তমানে সেখানে গ্রিলের অস্তিত্বই নেই। যার ফলে গত ঈদের পর থেকেই ব্রিজ দিয়ে অবাধে চলছে সিএনজি অটোরিকশসহ প্রায় সব ধরণের যানবাহন। এতে বাধা দিচ্ছে না দায়িত্বে থাকা ট্রাফিক পুলিশ।

এ বিষয়ে সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার জ্যোতির্ময় সরকার সিলেটভিউ-কে বলেন, বিষয়টি সম্পর্কে আমরা অবগত নই। তাছাড়া আমাদের ট্রাফিক বিভাগে লোকবল সঙ্কটও রয়েছে। তাই ওদিকে নজরদারি করা যাচ্ছে না। তবে বিষয়টি দেখছি।

এ বিষয়ে সিলেট সিটি করপোরেশেনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী সিলেটভিউ-কে ফোনে জানান, গ্রিল যে ভেঙেছে সেটি  দেখেছি এবং দ্রুত মেরামতের ব্যবস্থা করছি।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / ১২ আগস্ট, ২০২০ / ডালিম

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সাম্প্রতিক সিলেট খবর

  •   এমসি কলেজে গণধর্ষণের প্রতিবাদে সভা, শনিবার বিশাল মানববন্ধন
  •   হাসান মার্কেটে দোকান মালিক ও ব্যবসায়ী সমিতির দোয়া মাহফিল
  •   ছাত্রাবাসে গণধর্ষণ : অকুস্থল পরিদর্শন করলো হাইকোর্ট গঠিত তদন্ত কমিটি
  •   সিলেটে চিফ মেট্রোপলিটন আদালতে প্রযুক্তির ছোঁয়া
  •   গণধর্ষণের তদন্তভার র‍্যাবের হাতে হস্তান্তর চান সিলেটের নাগরিকবৃন্দ
  •   সিলেটে মেটলাইফের ম্যানেজার কবিরের যত ‘স্বেচ্ছাচারিতা-অনিয়ম’
  •   সিলেটে ৪ অক্টোবর থেকে ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত জাতীয় ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন
  •   হরিপুর গ্যাস ফিল্ডের ৯নং কূপের খনন কাজ শুরু
  •   সিলেট নগরীতে ৩ ছিনতাইকারী গ্রেফতার
  •   আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পূর্ণাঙ্গ রূপ পাচ্ছে ওসমানী