আজ বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০ ইং

বানিয়াচংয়ে কষ্টে আছেন নন-এমপিও শিক্ষকরা

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০২০-০৮-০৮ ১১:২১:৩১

বানিয়াচং (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি :: করোনা পরিস্থিতিতে সারাদেশের বেশিরভাগ বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নন-এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীরা প্রায় তিনি থেকে পাঁচ মাস ধরে বেতন পাচ্ছেন না। হাতে গোনা কয়েকটি প্রতিষ্ঠান বেতন দিলেও বেশিরভাগ নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারীরা বেতন পাননি। 

দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হলে গত ১৭ মার্চ থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করে সরকার। এরপর দফায় দফায় বন্ধের মেয়াদ বাড়ানো হয়। সর্বশেষ নির্দেশনায় আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত এ মেয়াদ বাড়ানো হয়েছে। দীর্ঘদিন বন্ধ থাকায় শিক্ষার্থীদের টিউশন ফি আদায়ে সমস্যার সৃষ্টি হয়। ফলে নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং এমপিওভুক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের নন-এমপিও শিক্ষকদের বেতন বন্ধ হয়ে যায়। এসময় নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কোনও আয় না থাকায় মার্চ থেকেই তাদের শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতন বন্ধ রয়েছে।

সারাদেশের ন্যায় এর ব্যাপক প্রভাব পড়েছে বিশ্বের বৃহত্তম গ্রাম বানিয়াচংয়ের নন-এমপিও শিক্ষকদের ওপর। এদের অধিকাংশই বেতনহীন মানবেতর জীবন যাপন করছেন। তেমনই বানিয়াচংয়ের একজন শিক্ষক মোহাম্মদ আলী। শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে  রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিষয়ে ১ম স্থান অর্জনকারী মোহাম্মদ আলী হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলার একটি কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক। কিন্তু তিনি একজন নন-এমপিও শিক্ষক। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় তিনি প্রায় তিন মাস ধরে বেতন পাচ্ছেন না।

এভাবে শুধু মোহাম্মদ আলীই নন, তার মতো বানিয়াচংয়ের বেশিরভাগ নন-এমপিও শিক্ষক কষ্টে দিন কাটাচ্ছেন। কষ্ট লাঘবে সরকারের সুদৃষ্টি কামনা করছেন তারা।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / ৮ আগস্ট, ২০২০ / জসিম / ডালিম

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন